X
বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
১৭ মাঘ ১৪২৯

স্বামী-সন্তানের পর মারা গেলেন দগ্ধ সোনিয়াও

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি
০৩ নভেম্বর ২০২২, ২২:৪৩আপডেট : ০৩ নভেম্বর ২০২২, ২২:৪৩

মানিকগঞ্জে ফ্ল্যাট বাসায় গ্যাস বিস্ফোরণে অগ্নিদগ্ধ হয়ে স্বামী ও সন্তানের পর স্ত্রী সোনিয়া আক্তারও মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার (৩ নভেম্বর) ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

এর আগে, গত ২৪ অক্টোবর (মঙ্গলবার) বিস্ফোরণটি ঘটে। ২৬ অক্টোবর মারা যান রাশেদুল ইসলাম (৪৫)। ৩১ অক্টোবর তিন বছরের ছেলে রিফাত মারা যায়। আর মারা যান সোনিয়া। তিন জনই ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। এতে আগুনে দগ্ধ পরিবারটির আর কেউই বেঁচে রইলেন না।

এখন শুধু মারা যাওয়া মাংস ব্যবসায়ী রাশেদুলের দোকান কর্মচারী ফারুক হোসেন (২৬) চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তার অবস্থা ভালো বলে জানা গেছে। রাশেদুলের বড় ভাই মো. রসুলদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

পারিবার, পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মানিকগঞ্জে পৌরসভাধীন নারাঙ্গাই এলাকায় ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের পাশে মাংসের ব্যবসা (কসাই) করেন রাশেদুল ইসলাম। এলাকার একটি ফ্ল্যাট বাসা ভাড়া নিয়ে তিনি স্ত্রী ও সন্তান নিয়ে থাকতেন। সোমবার ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের তাণ্ডবের রাতে ফ্ল্যাটের দরজা ও জানালা বন্ধ করে একটি কক্ষে রাশেদুল ও দোকানের কর্মচারী ফারুক হোসেন এবং অপর কক্ষে রাশেদুলের স্ত্রী সোনিয়া আক্তার ও তিন বছরের সন্তান রিফাত ঘুমিয়ে পড়েন। শেষ রাতে রাশেদুল ঘুম থেকে ওঠে দোকানে ফারুককে ডেকে তোলেন। রাশেদুল সিগারেটে আগুন ধরানোর জন্য দিয়াশলাইয়ের কাঠি জ্বালানোর পরপরই বিকট শব্দে বিস্ফোরণ ঘটে।

এ সময় ফ্ল্যাটের একটি কক্ষের দেয়াল ধসে পড়ে এবং দরজা-জানালা ছিটকে আশপাশে যায়। এতে তারা চারজন দগ্ধ হন। তাদের জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে গুরুতর দগ্ধ রাশেদুল এবং তার স্ত্রী ও শিশু সন্তানকে ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি নেওয়া হয়। দগ্ধ অবস্থায় ফারুকে মানিকগঞ্জ  জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

রাশেদুলের বড় ভাই মো. রসুলদী জানান, গুরুতর অগ্নিদগ্ধ হওয়ায় তার ছোট ভাই, ভাইয়ের স্ত্রী ও ভাতিজাকে ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় ২৬ অক্টোবর তার ভাই রাশেদুল, ৩১ অক্টোবর ভাতিজা রিফাত ও ৩ নভেম্বর সোনিয়া আক্তার মারা যান।

মানিকগঞ্জ সদর থানার ওসি আবদুর রউফ সরকার বলেন, অগ্নিদগ্ধ চার জনের মধ্যে স্বামী-স্ত্রী ও সন্তান একে একে চিকিসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন।

/এফআর/
সর্বশেষ খবর
ইন্দিরা ও রাজীব গান্ধী হত্যাকাণ্ড নিয়ে যে বিতর্ক জন্ম দিলেন বিজেপির মন্ত্রী
ইন্দিরা ও রাজীব গান্ধী হত্যাকাণ্ড নিয়ে যে বিতর্ক জন্ম দিলেন বিজেপির মন্ত্রী
‘ইউক্রেন অস্ত্র না পেলে যুদ্ধ ছড়িয়ে পড়বে ইউরোপে’
‘ইউক্রেন অস্ত্র না পেলে যুদ্ধ ছড়িয়ে পড়বে ইউরোপে’
স্যার এ এফ রহমান হল ডিবেটিং ক্লাবের সভাপতি- রায়হান, সম্পাদক মেহেদী
স্যার এ এফ রহমান হল ডিবেটিং ক্লাবের সভাপতি- রায়হান, সম্পাদক মেহেদী
ভারতে বহুতল ভবনে আগুন, নিহত ১৪
ভারতে বহুতল ভবনে আগুন, নিহত ১৪
সর্বাধিক পঠিত
প্রাইজবন্ডের ড্র, প্রথম পুরস্কার ০০৮৮৭০৮
প্রাইজবন্ডের ড্র, প্রথম পুরস্কার ০০৮৮৭০৮
আবাসিক হোটেলটিতে গেলেই গোপন ক্যামেরায় ধারণ করা হতো ভিডিও
আবাসিক হোটেলটিতে গেলেই গোপন ক্যামেরায় ধারণ করা হতো ভিডিও
সীমান্তে কাঁটাতারের বেড়া দিচ্ছিল বিএসএফ, বিজিবির বাধা
সীমান্তে কাঁটাতারের বেড়া দিচ্ছিল বিএসএফ, বিজিবির বাধা
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসে চাকরির সুযোগ
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসে চাকরির সুযোগ
যুক্তরাষ্ট্রের ‘বার্মা অ্যাক্ট’ আঞ্চলিক সংঘর্ষ বাড়াতে পারে
সেমিনারে বিশ্লেষকরাযুক্তরাষ্ট্রের ‘বার্মা অ্যাক্ট’ আঞ্চলিক সংঘর্ষ বাড়াতে পারে