X
রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২
১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
বিএডিসিতে অনিয়ম পর্ব-৯

চাষি নির্বাচনেও দুর্নীতি!

শাহেদ শফিক
১৩ জুলাই ২০২১, ১১:০০আপডেট : ১৩ জুলাই ২০২১, ১৫:০৩

নানা অনিয়মে চলছে বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশন। এ নিয়ে বাংলা ট্রিবিউন-এর ধারাবাহিক প্রতিবেদনের নবম পর্ব থাকছে আজ।

চাষি নির্বাচনেও দুর্নীতির আশ্রয় নিয়েছে বাংলাদেশ কৃষি উন্নয়ন করপোরেশন (বিএডিসি)। কোনও দরপত্র ছাড়াই চাষিদের সঙ্গে চুক্তি করে নগদে ধান বীজ ক্রয় করা হয়েছে। সরকারি বিধিবিধান না মেনে বিশেষ একটি গোষ্ঠীকে সুবিধা দিতেই এ অনিয়মের আশ্রয় নেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। অনিয়মের চিত্র উঠে এসেছে সরকারি এক নিরীক্ষা প্রতিবেদনে। জড়িতদের দায় নির্ধারণ করে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার সুপারিশ করা হয়েছে তাতে।

সরকারে একটি সংস্থা ২০১৯ সালের ২৫ ডিসেম্বর থেকে ২০২০ সালের ২ জানুয়ারি পর্যন্ত বিএডিসির বিভিন্ন অর্থবছরের বার্ষিক খরচের বিবরণী, বিল-ভাউচার ও রেজিস্টার পর্যালোচনা করে এ অনিয়ম ধরতে পেরেছে।

অনুসন্ধানে দেখা গেছে, দরপত্র আহ্বানের মাধ্যমে চাষি নির্বাচন না করে সরাসরি তাদের সঙ্গে চুক্তি করা হয়। এভাবে নগদে ধান বীজ ক্রয়ে প্রতিষ্ঠানটির ক্ষতি হয়েছে প্রায় ১১ কোটি ১১ লাখ ৪৮ হাজার টাকা।

২০১৮-১৯ অর্থবছরে প্রতিষ্ঠানটি ২ হাজার ৭৩৪ মেট্রেক টন ধান বীজ ক্রয় বাবদ ৫৮৮টি ভাউচারের মাধ্যমে ৩৮৮ জন চুক্তিবদ্ধ চাষির অনুকূলে এই বিপুল পরিমাণ টাকা পরিশোধ করা হয়েছে। বীজ সরবরাহকারী চাষিদের উন্মুক্ত দরপত্র আহ্বানের মাধ্যমে নির্বাচন না করে পিপিআর ২০০৮-এর বিধি লঙ্ঘন করে সরাসরি স্থানীয়ভাবে বাছাই করা হয়েছে। এতে প্রকৃত চাষিরা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে।

পিপিআর ২০০৮-এর বিধি ৬১ ও ৯০ মোতাবেক বিজ্ঞাপন প্রচারের মাধ্যমে সকল যোগ্য দরপত্রদাতার নিকট হতে দরপত্র আহ্বান করে পণ্য ও সংশ্লিষ্ট সেবা ক্রয় করতে হবে। এ ক্ষেত্রে উন্মুক্ত দরপত্র পদ্ধতির প্রয়োগ করার কথা। কিন্তু বিএডিসি এভাবে চাষি নির্বাচন করেনি।

বিধি মোতাবেক প্রতিটি ক্রয়ের ক্ষেত্রে অনধিক ২৫ হাজার টাকা এবং বছরে অনধিক ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত সরাসরি নগদে ক্রয় করা যাবে। কিন্তু ওই বীজ কেনার ক্ষেত্রে তা মানা হয়নি। এভাবে নগদ ক্রয় করায় ওই পরিমাণ টাকা সরকারের অনিয়মিত ব্যয় হিসেবে ধরা হয়েছে।

বিএডিসি সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান বলেছে, বীজ উৎপাদনের জন্য চুক্তিবদ্ধ চাষি নিয়োগের নিয়মনীতি যাচাই করে পরে বিস্তারিত জবাব দেওয়া হবে। কিন্তু এখনও সে জবাব দেওয়া হয়নি।

জানতে চাইলে বিএডিসি’র চেয়ারম্যান ড. অমিতাভ সরকার বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আমরা অনিয়ম বা আপত্তিগুলোর জবাব চেয়েছি। সে অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

/এফএ/আইএ/আপ-এনএইচ/
টাইমলাইন: বিএডিসিতে অনিয়ম
১৪ জুলাই ২০২১, ১২:৫৭
১৩ জুলাই ২০২১, ১১:০০
চাষি নির্বাচনেও দুর্নীতি!
১২ জুলাই ২০২১, ১৫:০০
ইরানে ‘নৈতিকতা পুলিশের’ কার্যক্রম স্থগিত
ইরানে ‘নৈতিকতা পুলিশের’ কার্যক্রম স্থগিত
শীতের রূপচর্চায় রাখা চাই যেসব উপাদান
শীতের রূপচর্চায় রাখা চাই যেসব উপাদান
সিআরবিতে হাসপাতাল হবে না: রেলমন্ত্রী
সিআরবিতে হাসপাতাল হবে না: রেলমন্ত্রী
১৩-১৫ সালের নাটকের পুনরাবৃত্তি হচ্ছে: মির্জা ফখরুল
১৩-১৫ সালের নাটকের পুনরাবৃত্তি হচ্ছে: মির্জা ফখরুল
সর্বাধিক পঠিত
১১ মাসে নাগরিকত্ব ছাড়লেন ৪০১ বাংলাদেশি
১১ মাসে নাগরিকত্ব ছাড়লেন ৪০১ বাংলাদেশি
মেসি-আলভারেজের গোলে কোয়ার্টার ফাইনালে আর্জেন্টিনা
মেসি-আলভারেজের গোলে কোয়ার্টার ফাইনালে আর্জেন্টিনা
‘পুলিশ প্রটোকলে’ বিদায় নিলেন রাঙ্গাবালীর ইউএনও
‘পুলিশ প্রটোকলে’ বিদায় নিলেন রাঙ্গাবালীর ইউএনও
হাসপাতালে কী হয়েছিল মাইশার সঙ্গে?
আঙুলের অপারেশন করতে গিয়ে মৃত্যুহাসপাতালে কী হয়েছিল মাইশার সঙ্গে?
‘ঘটনার পেছনের ঘটনা’ জেনে ফারিণের দুঃখপ্রকাশ
‘ঘটনার পেছনের ঘটনা’ জেনে ফারিণের দুঃখপ্রকাশ