X
শনিবার, ১৯ জুন ২০২১, ৫ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

ময়মনসিংহ মেডিক্যালের করোনা আইসিইউ নিয়ে তদন্ত কমিটি

আপডেট : ০৩ মে ২০২১, ২৩:২৩

ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) চিকিৎসা সেবার বেহাল অবস্থা বিষয়ে ওঠা অভিযোগের তদন্ত শুরু হয়েছে। ঘটনা তদন্তে তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. ইমরুল হাসান রবিকে প্রধান করে গঠিত কমিটির অপর সদস্যরা হলেন নেফ্রোলজি বিভাগের ডা. হাসানুল ইসলাম আকাশ ও মেডিক্যাল অফিসার ডা. আমিন ইসলাম নূর। কমিটিকে তিন কার্যদিবসের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. ওয়ায়েজ উদ্দীন ফরাজী। তিনি বলেন, বাংলা ট্রিবিউনে আইসিইউয়ের সেবা নিয়ে সংবাদ প্রকাশের পর বিষয়টি আমলে নিয়ে হাসপাতালের পরিচালক তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন। তদন্ত কমিটি ইতোমধ্যে কাজ শুরু করেছে। প্রতিবেদন পাওয়ার পর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানান তিনি।

তবে এ বিষয়ে জেলা বিএমএ সভাপতি ডা. মতিউর রহমান ভূইয়া জানান, আইসিইউ পরিচালনার জন্য দক্ষ জনশক্তি গড়ে ওঠেনি। পুরোনো যারা ছিলেন তারাই কাজ করছেন। তবে দায়িত্বরত চিকিৎসকরা দায়িত্ব যথারীতি পালনের চেষ্টা করছেন বলে দাবি করেন তিনি। তবে চিকিৎসা সেবার বিষয়ে কোনও অবহেলা থাকলে বিষয়টি কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে সমাধানের তাগিদ দেন তিনি।

মেয়াদোত্তীর্ণ মানহীন টেস্টিং কিট ও রিএজেন্ট ব্যবহার

এরআগে, গত ১ মে দেশের পাঠকপ্রিয় নিউজ পোর্টাল বাংলা ট্রিবিউনে ‌‌‌‌‌‌‌‌‌‘ময়মনসিংহ মেডিক্যালে নামকাওয়াস্তে আইসিইউ সেবা’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হয়। পরে এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে আলোচনা হয়। গত ১ মে রাতে বেসরকারি টিভি চ্যানেল একাত্তর টিভির 'একাত্তর জার্নাল' টকশোতেও এ নিয়ে আলোচনা হয়। ওই অনুষ্ঠানে যুক্ত হয়ে ময়মনসিংহের স্বাস্থ্য বিভাগের পরিচালক ডা. শাহ আলম বলেছিলেন, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি তদন্ত করে তিন কার্যবিসের মধ্যে প্রতিবেদন দেবে ও সে অনুযায়ী ব্যবস্থা নেবে। বাংলা ট্রিবিউনে সংবাদ প্রকাশের ফলে আইসিইউ সেবার মান বাড়বে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

/টিটি/

সম্পর্কিত

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ইব্রাহিম রায়িসিকে বিজয়ী ঘোষণা

ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ইব্রাহিম রায়িসিকে বিজয়ী ঘোষণা

ভারতে আসছে করোনার তৃতীয় ঢেউ

ভারতে আসছে করোনার তৃতীয় ঢেউ

খুলনায় একদিনে ২২ জনের মৃত্যুর রেকর্ড

খুলনায় একদিনে ২২ জনের মৃত্যুর রেকর্ড

‘পুঁজিবাজারে আস্থা ফিরেছে বিনিয়োগকারীদের’

‘পুঁজিবাজারে আস্থা ফিরেছে বিনিয়োগকারীদের’

সাতক্ষীরায় একদিনে ৯ জনের মৃত্যু, শনাক্তের হার ৬০ শতাংশ

সাতক্ষীরায় একদিনে ৯ জনের মৃত্যু, শনাক্তের হার ৬০ শতাংশ

এবার চাকরি হারানোর আতঙ্কে বেসরকারি কলেজের অনার্স-মাস্টার্সের শিক্ষকরা

এবার চাকরি হারানোর আতঙ্কে বেসরকারি কলেজের অনার্স-মাস্টার্সের শিক্ষকরা

আমরা এখন অন্যদের ঋণ দিচ্ছি: তথ্যমন্ত্রী

আমরা এখন অন্যদের ঋণ দিচ্ছি: তথ্যমন্ত্রী

দেশের উন্নয়ন-অর্জনই বিএনপির গাত্রদাহের কারণ: ওবায়দুল কাদের

দেশের উন্নয়ন-অর্জনই বিএনপির গাত্রদাহের কারণ: ওবায়দুল কাদের

সিনোফার্মের টিকা প্রয়োগ শুরু

সিনোফার্মের টিকা প্রয়োগ শুরু

করোনায় আক্রান্ত 'থর', ভারতের কাছে সাহায্য চাইলো শ্রীলঙ্কা

করোনায় আক্রান্ত 'থর', ভারতের কাছে সাহায্য চাইলো শ্রীলঙ্কা

সর্বশেষ

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

গ্রিজমানের গোলে হার এড়ালো ফ্রান্স

গ্রিজমানের গোলে হার এড়ালো ফ্রান্স

ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ইব্রাহিম রায়িসিকে বিজয়ী ঘোষণা

ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ইব্রাহিম রায়িসিকে বিজয়ী ঘোষণা

ফতুল্লায় কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় প্রাণ গেলো রিকশার ২ যাত্রীর

ফতুল্লায় কাভার্ডভ্যানের ধাক্কায় প্রাণ গেলো রিকশার ২ যাত্রীর

ফিরোজায় ফিরেছেন খালেদা জিয়া

ফিরোজায় ফিরেছেন খালেদা জিয়া

শার্শায় ৪৩ নমুনা পরীক্ষায় ৩২ জনই আক্রান্ত

শার্শায় ৪৩ নমুনা পরীক্ষায় ৩২ জনই আক্রান্ত

কাবুলে মার্কিন দূতাবাসে করোনার তাণ্ডব: আক্রান্ত ১১৪

কাবুলে মার্কিন দূতাবাসে করোনার তাণ্ডব: আক্রান্ত ১১৪

মায়ের পর দগ্ধ মেয়েরও মৃত্যু

মায়ের পর দগ্ধ মেয়েরও মৃত্যু

ভারতে আসছে করোনার তৃতীয় ঢেউ

ভারতে আসছে করোনার তৃতীয় ঢেউ

ধোনিকে ছাড়িয়ে অধিনায়ক কোহলির রেকর্ড

ধোনিকে ছাড়িয়ে অধিনায়ক কোহলির রেকর্ড

গ্রুপ অ্যাডমিনদের জন্য নতুন ফিচার আনলো ফেসবুক

গ্রুপ অ্যাডমিনদের জন্য নতুন ফিচার আনলো ফেসবুক

বাগেরহাটের রেজাউল হত্যা মামলার দুই আসামি গ্রেফতার

বাগেরহাটের রেজাউল হত্যা মামলার দুই আসামি গ্রেফতার

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

বাঁশ বেঁধেও ঠেকানো যাচ্ছে না মানুষের চলাচল

খুলনায় একদিনে ২২ জনের মৃত্যুর রেকর্ড

খুলনায় একদিনে ২২ জনের মৃত্যুর রেকর্ড

সাতক্ষীরায় একদিনে ৯ জনের মৃত্যু, শনাক্তের হার ৬০ শতাংশ

সাতক্ষীরায় একদিনে ৯ জনের মৃত্যু, শনাক্তের হার ৬০ শতাংশ

যশোরে একদিনে শনাক্তের রেকর্ড

যশোরে একদিনে শনাক্তের রেকর্ড

হিলি দিয়ে ভারতফেরত ৯ জন করোনা পজিটিভ

হিলি দিয়ে ভারতফেরত ৯ জন করোনা পজিটিভ

১ টাকার সালামিতে ঘর পাচ্ছে ১০৯ পরিবার

১ টাকার সালামিতে ঘর পাচ্ছে ১০৯ পরিবার

সাতক্ষীরায় করোনায় ৫৭ জনের মৃত্যু

সাতক্ষীরায় করোনায় ৫৭ জনের মৃত্যু

লাভের আশায় আমদানি কমিয়ে দিয়েছেন পেঁয়াজ ব্যবসায়ীরা

লাভের আশায় আমদানি কমিয়ে দিয়েছেন পেঁয়াজ ব্যবসায়ীরা

কমছে না মৃত্যু, রাজশাহী মেডিক্যালে মারা গেলেন আরও ১২ জন

কমছে না মৃত্যু, রাজশাহী মেডিক্যালে মারা গেলেন আরও ১২ জন

© 2021 Bangla Tribune