X
মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩
১৭ মাঘ ১৪২৯

এক কেজি চালের জন্য ১১ দিনের অপেক্ষা

সালেহ টিটু, বরিশাল
২৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯:০১আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২২, ১৯:০১

মা-ইলিশ শিকারে নিষিদ্ধের সময় শুরুর পর এক কেজি ১৩ গ্রাম চালের জন্য জেলেদের ১১ দিন অপেক্ষা করতে হয়েছে। কিন্তু তারপরেও নিবন্ধন করা সব জেলের হাতে চাল পৌঁছায়নি। এ কারণে সংসার চালাতে গোপনে জাল ফেলে কিছু কিছু জেলে নিষেধাজ্ঞার মধ্যে ইলিশ ধরেছেন বলে জানা গেছে।

নিবন্ধন করা একাধিক জেলে বলেন, ‘জেলেদের ২২ দিনের জন্য ২৫ কেজি করে চাল বিতরণের বিষয়টি জোরেশোরে প্রচার করা হয়। কিন্তু কর্তৃপক্ষ ভেবে দেখে না, মাত্র এক কেজি ১৩ গ্রাম চালে ৫ সদস্যের একটি পরিবার একদিনও চলতে পারে কিনা। এরপরও আমরা তো শুধু চাল খেয়ে বেঁচে থাকবো না। এ জন্য জ্বালানি কাঠ থেকে শুরু করে আনুষঙ্গিক যা প্রয়োজন তা জোগাড় করতে হচ্ছে। আর এ জন্য ঋণ নিতে হচ্ছে। অথবা আড়তদারদের কাছ থেকে দাদন আনতে হচ্ছে। জেলেরা কিন্তু কোনোভাবেই ঋণ থেকে বাঁচতে পারছে না। তারপরও সরকারের দেওয়া নিষেধাজ্ঞা মেনে চলার চেষ্টা করছেন মাঠ পর্যায়ের জেলেরা।’

জেলেরা আরও বলেন, ‘ইলিশের নিষিদ্ধ সময় শুরু হয়েছে ৭ অক্টোবর থেকে। কিন্তু চাল বিতরণ শুরু হয় নিষিদ্ধ সময়ের ১১ দিন পর। এতে অভাবে পড়ে ওই সময়টা মৌসুমি জেলে থেকে শুরু করে প্রকৃত জেলেরাও ইলিশ শিকার করেছে।’ এ জন্য দ্রুত চাল বিতরণ এবং জেলেদের জন্য বিকল্প কর্মসংস্থানের দাবি জোরদার হচ্ছে বলে জানান জেলা জেলে সমিতির সাধারণ সম্পাদক বাবুল মীরা। 

শায়েস্তাবাদের চেয়ারম্যান আরিফুজ্জামান মুন্না ও টুঙ্গিবাড়িয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নাদিরা রহমানসহ একাধিক চেয়ারম্যান বলেন, ‘নিষিদ্ধ সময় শুরুর ১১ দিন পর চাল পেয়েছেন জেলেরা। এরপর চাল উত্তোলন করে সঙ্গে সঙ্গে তা জেলেদের মাঝে বিতরণ করা হয়।’

তারা আরও  বলেন, ‘বরিশাল নগরীর সরকারি গুদাম থেকে জেলেদের চাল আনা এবং বিতরণে বড় একটি খরচ রয়েছে। কিন্তু সরকারিভাবে থেকে যাতায়াত বাবদ কোনও খরচ দেওয়া হয় না। তা আমাদের চেয়ারম্যানদের পকেট থেকেই দিতে হচ্ছে বছরের পর বছর ধরে। এমনকি গুদাম থেকে মাপে চাল কম দিলে দুর্নামের ভয়ে ওই চালও কিনে সমন্বয় করতে হচ্ছে। বিষয়গুলো সংশ্লিষ্ট দফতরে একাধিকবার অবহিত করা হলেও কাজের কাজ কিছুই হয়নি।’

তবে চাল বিতরণে বিলম্বের বিষয়ে মৎস্য কর্মকর্তা (ইলিশ) ড. বিমল চন্দ্র দাস বলেন, ‘কোনও ধরনের বিলম্ব করা হয় না। বিভিন্ন দফতর ঘুরে এরপর চালটি চেয়ারম্যানদের মাধ্যমে জেলেদের হাতে পৌঁছানো হয়। আসলে কয়েকটি দফতর ঘুরে আসার কারণেই এ অবস্থার সৃষ্টি হয়। এখানে কাউকে দায়ী করা যাবে না। প্রসেসিংয়ে সময় লেগে যাচ্ছে।’

নদীতে ইলিশ না থাকার বিষয়ে বরিশাল বিভাগীয় মৎস্য অধিদফতরের সহকারী পরিচালক মো. নাসিরউদ্দিন বলেন, ‘নিষিদ্ধ সময় থেকে মা ইলিশ শিকার করেছেন মৌসুমি জেলেরা। এ কারণে তাদের জেল-জরিমানা এবং অর্থদণ্ড দেওয়া হয়। তবে সম্প্রতি অভিযানকালে জেলে আটক হলেও তেমন ইলিশ মিলছে না। এর প্রধান কারণ, যে সময় ইলিশ মিলেছে তখন ছিল পূর্ণিমার জো। ওই সময় মা ইলিশ ডিম ছেড়ে চলে গেছে। আবার অমাবশ্যার জো শুরু হলে মা ইলিশ আবার নদীতে ফিরে এসে ডিম ছাড়বে।’

তিনি আরও বলেন, ‘বরিশাল বিভাগে ৩ লাখ ৯৯ হাজার ৭৯১ জন জেলে রয়েছেন। এর মধ্যে ৩ লাখ ৬ হাজার ১২০ জন জেলে নিষিদ্ধ সময়ে ইলিশ শিকারে বিরত থাকায় সরকারি বরাদ্দের চাল পাবেন। তাদের জন্য সরকার ৯ হাজার ১৮৩ দশমিক ৬০ মেট্টিক টন চাল বরাদ্দ দিয়েছে।’

এদিকে, শনিবার পর্যন্ত বরিশাল বিভাগের ৬ জেলায় ৪৮৮ জন জেলেকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। জরিমানা আদায় হয়েছে ৬ লাখ ৮৭৫ টাকা। এ সময় ৯ কোটি ১৮ লাখ ৩৯৬ টাকা মূল্যের ৪৪ দশমিক ৪৪৮ মিটার জাল আগুনে ধ্বংস করা হয়। ৩ হাজার ৭৮৩ মেট্রিক টন ইলিশ এতিমখানা ও দুস্থদের মাঝে বিতরণ করা হয়। ইলিশ শিকারে থাকা ট্রলার নিলামে বিক্রি করে সরকারি কোষাগারে জমা দেওয়া হয় ৭ লাখ ৩৭৮ টাকা।

 

/এমএএ/
সর্বশেষ খবর
সংবাদ প্রকাশের পর কুমিল্লার হাইওয়ে হোটেলে অভিযান
সংবাদ প্রকাশের পর কুমিল্লার হাইওয়ে হোটেলে অভিযান
ভাড়াটে খুনি দিয়ে ভাতিজাকে খুন করান সাইফুল
ভাড়াটে খুনি দিয়ে ভাতিজাকে খুন করান সাইফুল
অভিনেত্রী আঁখির অবস্থা এখনও আশঙ্কাজনক
অভিনেত্রী আঁখির অবস্থা এখনও আশঙ্কাজনক
শীতপ্রবণ তেঁতুলিয়ায় আশ্রয়ণ প্রকল্পে বদলে যাওয়া জীবনের গল্প
শীতপ্রবণ তেঁতুলিয়ায় আশ্রয়ণ প্রকল্পে বদলে যাওয়া জীবনের গল্প
সর্বাধিক পঠিত
অভিনেত্রী আঁখির অবস্থা এখনও আশঙ্কাজনক
অভিনেত্রী আঁখির অবস্থা এখনও আশঙ্কাজনক
এসআইবিএল থেকে মাহবুব-উল-আলমের পদত্যাগ
এসআইবিএল থেকে মাহবুব-উল-আলমের পদত্যাগ
এনআইডি’র সঙ্গে সমন্বয় করে পাসপোর্ট সমস্যা দ্রুত সমাধানের সুপারিশ
এনআইডি’র সঙ্গে সমন্বয় করে পাসপোর্ট সমস্যা দ্রুত সমাধানের সুপারিশ
রাশিয়ার সঙ্গে সরাসরি সংঘাতে প্রস্তুত ন্যাটো?
রাশিয়ার সঙ্গে সরাসরি সংঘাতে প্রস্তুত ন্যাটো?
আলাদা ইউনিট করে রাজউকই পূর্বাচলে নাগরিক সেবা দেবে
আলাদা ইউনিট করে রাজউকই পূর্বাচলে নাগরিক সেবা দেবে