X
শনিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৪
২৯ চৈত্র ১৪৩০
হাওরে আটক বুয়েটশিক্ষার্থীরা

‘কোনও রাষ্ট্রবিরোধী কাজে আমাদের সন্তানেরা জড়িত নয়’

ঢাবি প্রতিনিধি
০১ আগস্ট ২০২৩, ১৯:০৩আপডেট : ০১ আগস্ট ২০২৩, ১৯:০৩

টাঙ্গুয়ার হাওরে ঘুরতে গিয়ে রাষ্ট্রদ্রোহী কর্মকাণ্ডের পরিকল্পনার অভিযোগে গ্রেফতার বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থীরা কোনও ধরনের রাষ্ট্রবিরোধী কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত নয় বলে দাবি করেছে তাদের অভিভাবকরা।

মঙ্গলবার (১ আগস্ট) বুয়েটের শহীদ মিনারের সামনে গ্রেফতার ওই শিক্ষার্থীদের অভিভাবকরা তাদের সন্তান-স্বজনদের মুক্তির দাবিতে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন। সেখানে লিখিত বক্তব্য পাঠকালে এই দাবি করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থী আলী আম্মার মোয়াজের বড় ভাই আলী আহসান জুনায়েদ। লিখিত বক্তব্য পাঠকালে তিনি বলেন, কোনও ধরনের রাষ্ট্রবিরোধী কার্যকলাপের সঙ্গে আমাদের সন্তানেরা জড়িত নয়।

“ছোটবেলা থেকেই তাদের পড়ালেখার প্রতি ঝোঁক ছিল; রাজনীতিসহ এ জাতীয় কোনও কাজের সঙ্গে তাদের সংশ্লিষ্টতা ছিল না কখনোই। উপরন্তু, বুয়েট ক্যাম্পাসে ছাত্ররাজনীতি নিষিদ্ধ হওয়ায় আমরা সর্বদাই তাদেরকে এ ব্যাপারে সাবধান করেছি এবং তারাও রাজনীতিমুক্ত হিসেবেই ছিল।”

“তারা কোনও ধরনের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত, এ ধরনের অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন, বানোয়াট ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। আমরা পরিষ্কার ভাষায় বলছি, তারা সাধারণ শিক্ষার্থী মাত্র। কোন ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে তাদের বিরুদ্ধে এমন ভয়ঙ্কর মামলা সাজানো হলো, আমাদের বোধগম্য নয়।”

বুয়েট শিক্ষার্থীদের ভ্রমণ বিষয়ে তিনি বলেন, আমাদের জ্ঞাতসারে গত ২৯ জুলাই (শনিবার) আমাদের সন্তান/স্বজনেরা ক্যাম্পাসের বন্ধুদের সঙ্গে সুনামগঞ্জের টাঙ্গুয়ার হাওরে বেড়াতে যায়। যাওয়ার পরে সুনামগঞ্জ গিয়ে আরও বেশ কয়েকজন বুয়েটশিক্ষার্থীকে পেয়ে তারা আনন্দিত হয় এবং তারা সবাই এক সঙ্গে ঘোরার কথা জানায়। রবিবার সন্ধ্যার পর থেকে তাদেরকে ফোনে পাওয়া যাচ্ছিলো না। আমরা মনে করেছি ট্যুরে আছে, হাওর এলাকায় হয়তো নেটওয়ার্ক সমস্যার কারণে ফোনে কল যাচ্ছে না। দীর্ঘক্ষণ তাদেরকে ফোনে না পেয়ে আমরা শঙ্কিত হয়ে পড়ি।

''এর প্রায় ৩ ঘণ্টা পরে রাত ১০টার দিকে হঠাৎ ফোন করে আমাদের অনেকের কাছেই সন্তানরা তাদের নিজের ও অভিভাবকের জাতীয় পরিচয়পত্রের নাম্বার জানাতে বলে। তারা জানায় যে তাদেরকে পুলিশ হাওড়ে নৌকায় ভ্রমণের সময় জিজ্ঞাসাবাদের কথা বলে আটক করে তাহিরপুর থানায় নিয়ে এসেছে এবং জিজ্ঞাসাবাদ করেছে, এরপর পরিচয়পত্রের নাম্বার নেওয়ার পরে তাদের ছেড়ে দেওয়া হবে, বলে জানিয়েছে। তারা ফোনে শুধু এতটুকুই বলতে পারে। কিন্তু এর বেশি আর কথা বলতে দেওয়া হয়নি, ফোন নিয়ে নেওয়া হয়। আমরা এরপর থেকে তাদের বিষয়ে খোঁজখবর জানার জন্য স্থানীয় ওসি ও এসপিকে বারবার ফোন করেছি, কিন্তু ওনারা কেউ ফোন রিসিভ করেননি। তাই, আমরা জানতেও পারছিলাম না কেন তাদেরকে আটক করা হয়েছে।''

এই মামলা দুরভিসন্ধিমূলক বলে উল্লেখ করে তিনি বলেন, অনেক উদ্বিগ্নতার পরে গতকাল বিকালে সংবাদ মাধ্যমের বরাতে আমরা জানতে পারি যে, তাদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাস দমন আইনে মামলা দেওয়া হয়েছে। তারা নাকি নাশকতা সৃষ্টির পরিকল্পনার জন্য সেখানে গেছে। আমাদের সন্তানদের ব্যাপারে এমন অকল্পনীয় অভিযোগ শুনে আমরা যারপরনাই আশ্চর্য হই।

‘মামলায় তাদের কাছ থেকে জব্দকৃত মালামাল হিসেবে যে প্রসঙ্গ অবতারণা করা হয়েছে, এটি অত্যন্ত হাস্যকর এবং পরিষ্কারভাবে বানোয়াট’ উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, তারা টার্ম-ব্রেকের ছুটির মাঝে বন্ধু-বান্ধবের সঙ্গে ঘুরতে ওখানে গেছে। সঙ্গে সদ্য এসএসসি পাস করা কয়েকজন আত্মীয়কেও বেড়ানোর জন্য নিয়ে গেছে। পরে কোর্টে তোলার সময়ে আইনজীবীদেরকে তারা জানিয়েছে যে, জব্দ তালিকায় উল্লেখিত কাগজপত্র তাদের সামনেই অনাকাঙ্ক্ষিতভাবে সংগ্রহ করা হয়েছে এবং ইন্টারনেট থেকে ডাউনলোড দিয়ে প্রিন্ট করা হয়েছে মামলা সাজানোর জন্য।

ওই শিক্ষার্থীদের জামিন ও মুক্তির জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করে তিনি বলেন, এমন পরিস্থিতিতে শিক্ষার্থীদের ভবিষ্যৎ জীবনের নিরাপত্তা নিয়ে আমরা শঙ্কায় আছি। এ ব্যাপারে আমরা দেশবাসীর কাছে আমাদের নিরপরাধ সন্তানদের পাশে থাকার জন্য সহযোগিতা ও দোয়া কামনা করছি।

আরও পড়ুন:

/এমএস/
সম্পর্কিত
হাতিয়ায় কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার
সদরঘাটে পাঁচ যাত্রীর মৃত্যু: ৫ জন রিমান্ডে
সদরঘাটে হতাহতের ঘটনায় মামলা
সর্বশেষ খবর
চায়ের দোকানে আ.লীগ ও যুবলীগের দুই নেতাকে গুলি
চায়ের দোকানে আ.লীগ ও যুবলীগের দুই নেতাকে গুলি
সৈকতে জনসমুদ্র!
সৈকতে জনসমুদ্র!
তলানিতে থাকা দিল্লির কাছে থামলো লখনউর জয়যাত্রা
তলানিতে থাকা দিল্লির কাছে থামলো লখনউর জয়যাত্রা
নি‌ষেধাজ্ঞা স্থ‌গিত, বান্দরবা‌নের রুমায় ঘুরতে যেতে বাধা নেই
নি‌ষেধাজ্ঞা স্থ‌গিত, বান্দরবা‌নের রুমায় ঘুরতে যেতে বাধা নেই
সর্বাধিক পঠিত
ঈদের দিনে ইসরায়েল থেকে ঢাকায় ফ্লাইট এলো কেন?
ঈদের দিনে ইসরায়েল থেকে ঢাকায় ফ্লাইট এলো কেন?
‘মিজোরাম কুকি-চিনকে নাশকতায় কখনোই মদত দেবে না’
‘মিজোরাম কুকি-চিনকে নাশকতায় কখনোই মদত দেবে না’
আলো ছড়াচ্ছে কুষ্টিয়ার বয়স্ক বিদ্যালয়
আলো ছড়াচ্ছে কুষ্টিয়ার বয়স্ক বিদ্যালয়
ঈদে ফাঁকা বাসা থেকে স্বর্ণালঙ্কার চুরি, নিয়ে গেলো ফ্রিজের মাছ-মাংসও
ঈদে ফাঁকা বাসা থেকে স্বর্ণালঙ্কার চুরি, নিয়ে গেলো ফ্রিজের মাছ-মাংসও
সীমান্ত শহরের পতন, থাইল্যান্ডে ছুটছে মিয়ানমারের নাগরিকেরা
সীমান্ত শহরের পতন, থাইল্যান্ডে ছুটছে মিয়ানমারের নাগরিকেরা