X
রবিবার, ১৯ মে ২০২৪
৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

আগুনে বিলীন ২৫০ মাদ্রাসাশিক্ষার্থীর পাঠকেন্দ্র

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
১২ এপ্রিল ২০২৪, ১৮:৫২আপডেট : ১২ এপ্রিল ২০২৪, ২০:৫৭

রাজধানীর হাজারীবাগের ঝাউচর এলাকায় ভাঙারির দোকানের আগুনে লাগোয়া জামিয়া ইসলামিয়া দারুস সুন্নাহ মাদ্রাসা ও এতিমখানা পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। এতে মাদ্রাসার ২৫০ শিক্ষার্থীর পাঠ্যপুস্তক (কোরআন), বেডিং ও ট্রাংক পুড়ে গেছে।

শুক্রবার (১২ এপ্রিল) বেলা পৌনে ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। পরে ফায়ার সার্ভিসের সাতটি ইউনিট ৫০ মিনিট চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। আগুনে একটি মসজিদ-মাদ্রাসা এবং সাতটি দোকান পুড়ে যায়।

স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিস সূত্র জানায়, ঝাউচর বেড়িবাঁধ এলাকায় একটি মসজিদ-মাদ্রাসা ঘিরে প্রায় ৮ থেকে ১০টি দোকান গড়ে ওঠে। এর মধ্যে অধিকাংশ ছিল ভাঙারির দোকান। এসব ভাঙারির দোকান থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে।

এদিকে আগুনের সূত্রপাত ও ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে জানতে চাইলে ফায়ার সার্ভিসের ঢাকা জোন-১-এর উপসহকারী পরিচালক মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, হাজারীবাগের ঝাউচরে ১১টা ৫০ মিনিটের দিকে ভাঙারি দোকানে আগুন লাগে। হাজারীবাগ ফায়ার স্টেশনসহ আশপাশের সাতটি ইউনিট মিলে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনি। ফায়ার সার্ভিসের তৎপরতায় আশপাশে আগুন ছড়াতে পারেনি। তবে কী কারণে আগুন লেগেছে ও ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ আগুন নেভানো শেষে জানা যাবে।

কী ধরনের স্থাপনা ছিল জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখানে প্লাস্টিকের ভাঙারি দোকান ছিল। প্রচুর কাগজ ছিল। ফলে আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে। এখানে পানির স্বল্পতা থাকায় দূর থেকে পানি আনতে হয়েছে। তারপরও আমাদের প্রচেষ্টায় আগুন বেশি ছড়িয়ে যেতে পারেনি।

আগুনে বিলীন ২৫০ মাদ্রাসাশিক্ষার্থীর পাঠকেন্দ্র

মসজিদের খতিব ও মাদ্রাসাশিক্ষক ফরিদ আহমেদ বলেন, ঈদের ছুটিতে মাদ্রাসা বন্ধ ছিল। শুক্রবার হওয়ায় জুমার নামাজের প্রস্তুতি নিচ্ছিলাম। হঠাৎ পাশের একটি পলিথিন ও কার্টনের গোডাউন থেকে আগুন লাগে। দ্রুত আগুন পুরো মাদ্রাসায় ছড়িয়ে পড়ে।

তিনি আরও বলেন, মাদ্রাসায় ২৫০ জন শিক্ষার্থী পড়াশোনা করতো। তারা ঈদের ছুটিতে বাড়ি গেলেও তাদের ট্রাংক, কাপড় ও বিছানাপত্র, পাঠ্যপুস্তক (কোরআন ও হাদিসের বই) মাদ্রাসায় ছিল। এ ছাড়া শিক্ষার্থীদের জন্য রাখা চাল-ডালসহ সবকিছুই পুড়ে গেছে।

এ নিয়ে ভাঙারির ব্যবসায়ী হাসান মোল্লা বলেন, দোকানে ভাঙারি, কার্টন, পলিথিনসহ প্রায় ১০ লাখ টাকার মালামাল ছিল। সবকিছু পুড়ে শেষ। আমার সব শেষ। আমি পথে বসে গেছি।

তিনি আরও বলেন, ‘দোকানভর্তি মালামাল ছিল। ঈদের ছুটির পর এগুলো বিক্রি করার কথা ছিল। অথচ চোখের সামনে সব পুড়ে ছাই হয়ে গেলো। পরিবার নিয়ে পথে বসে গেলাম।’

ঝাউচর মোড় এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, হাজারীবাগ এলাকার বেড়িবাঁধ লাগোয়া জামিয়া ইসলামিয়া দারুস সুন্নাহ মাদ্রাসা ও এতিমখানা। একই সঙ্গে আলহাজ সামছুল হুদা জামে মসজিদ। আগুনে মাদ্রাসার সব পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। থরে থরে সাজানো পুড়ে যাওয়া মাদ্রাসাছাত্রদের ব্যবহৃত ট্রাংক। ছড়িয়ে-ছিটিয়ে আছে পুড়ে যাওয়া কাপড়, বিছানা ও কোরআনসহ বিভিন্ন খাতা বই। স্থানীয়রা এসব ট্রাংক সরাতে সহযোগিতা করছেন।

/এবি/এনএআর/এমওএফ/
সম্পর্কিত
কাওরানবাজারে লা ভিঞ্চি হোটেলের জেনারেটর রুমে আগুন
ধোলাইখালে মিউচুয়াল ট্র্যাস্ট ব্যাংকের শাখায় আগুন
থানচির দুর্গম পাহাড়ি পাড়ায় আগুন, নিয়ন্ত্রণে এনেছে বিজিবি
সর্বশেষ খবর
মেট্রোরেলে ভ্যাট বসানো ভুল সিদ্ধান্ত: ওবায়দুল কাদের
মেট্রোরেলে ভ্যাট বসানো ভুল সিদ্ধান্ত: ওবায়দুল কাদের
নির্বাচনে প্রভাব ফেলবে না মার্কিন শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ
গাজায় ইসরায়েলি হামলার প্রতিবাদনির্বাচনে প্রভাব ফেলবে না মার্কিন শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ
বিদায়ের পর চেন্নাই অধিনায়ক বললেন, ‘মোস্তাফিজকে মিস করেছি’
বিদায়ের পর চেন্নাই অধিনায়ক বললেন, ‘মোস্তাফিজকে মিস করেছি’
আগামী ৩ দিন হতে পারে বৃষ্টি, কমবে তাপপ্রবাহ
আগামী ৩ দিন হতে পারে বৃষ্টি, কমবে তাপপ্রবাহ
সর্বাধিক পঠিত
মামুনুল হক ডিবিতে
মামুনুল হক ডিবিতে
৩০ শতাংশ বেতন বৃদ্ধির দাবি তৃতীয় শ্রেণির সরকারি কর্মচারীদের
৩০ শতাংশ বেতন বৃদ্ধির দাবি তৃতীয় শ্রেণির সরকারি কর্মচারীদের
‘নীরব’ থাকবেন মামুনুল, শাপলা চত্বরের ঘটনা বিশ্লেষণের সিদ্ধান্ত
‘নীরব’ থাকবেন মামুনুল, শাপলা চত্বরের ঘটনা বিশ্লেষণের সিদ্ধান্ত
ভারতীয় পেঁয়াজে রফতানি মূল্য নির্ধারণ, বিপাকে আমদানিকারকরা
ভারতীয় পেঁয়াজে রফতানি মূল্য নির্ধারণ, বিপাকে আমদানিকারকরা
মোবাইল আনতে ডিবি কার্যালয়ে মামুনুল হক
মোবাইল আনতে ডিবি কার্যালয়ে মামুনুল হক