বিএনপির স্বাধীনতা দিবসের কর্মসূচি বাতিল

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২২:২৭, মার্চ ২৩, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:৩০, মার্চ ২৩, ২০২০

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর

করোনাভাইরাস সংক্রামণের পরিপ্রেক্ষিতে স্বাধীনতা দিবসের সব কর্মসূচি বাতিল করেছে বিএনপি। দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে সারাদেশের দলের সব কর্মসূচি বাতিল করেছি। কোনও রকমের জনসমাবেশ-সমাবেশ যেন না হয় তার জন্য নেতাকর্মীদেরকে দৃষ্টি রাখার আহ্বান জানাচ্ছি। সোমবার(২৩ মার্চ) রাতে গুলশানে বিএনপির চেয়ারপারসনে কার্যালয়ে সাংবাদিকদের এই সিদ্ধান্তের কথা জানান তিনি। দলের নেতা-কর্মীদের উদ্দেশ্যে মির্জা ফখরুল বলেন, নিজেরা সাবধান থেকে জনগণের মধ্যে সচেতনতার কাজ করবেন এবং দলের কর্মীরা যেন নিয়ম মেনে চলেন, সাবধানে থাকেন সেই বিষয়গুলো নিশ্চিত করবেন।

আরও নিবিড় আইসোলেশন দরকার

করোনাভাইরাসে মোকাবিলায় সরকারের ছুটি ঘোষণা ও বিভাগীয়-জেলা পর্যায়ে সেনাবাহিনী মোতায়েনের সিদ্ধান্ত সম্পর্কে প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে মির্জা ফখরুল বলেন, বিলম্বে হলেও সরকার কিছু ব্যবস্থা নিচ্ছে। এখন এটাকে যেন নিবিড়ভাবে পরিচালনা করা হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। বাংলাদেশ একটা ঘনবসতিপূর্ণ দেশ। এই দেশে এই ধরনের ছোঁয়াচে ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ছে। এটা যদি নিয়ন্ত্রণ করা না যায় তাহলে ভয়াবহ রকমের বিপর্যয়ের সম্মুখীন হতে হবে।

মির্জা ফখরুল বলেন, সরকার বলছে এই পর্যন্ত ৩৩ জন আক্রান্ত হয়েছে। পরীক্ষা করার জায়গা তো শুধুমাত্র আইইডিসিআর। সেই জায়গায় পরীক্ষা হচ্ছে, সবাই পরীক্ষা করতেও পারছেন না। যার ফলে কতজন রোগী ইতিমধ্যে আক্রান্ত হয়েছেন, কত জন এর দ্বারা সংক্রামিত হয়েছেন সেটার কোনও সঠিক পরিসংখ্যান আমরা পাচ্ছি না।

বিদেশ থেকে আসা ৬ লাখ প্রবাসী গ্রামে-গঞ্জে ছড়িয়ে পড়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করে বিএনপির মহাসচিব বলেন, সরকারের উদাসীনতা ও প্রশাসনের সমন্বয়হীনতার কারণে এটা হয়েছে। করোনাভাইরাসের কারণে গার্মেন্টস শিল্প রক্ষায় মালিক-শ্রমিকদের সঙ্গে আলোচনা করে ব্যবস্থা গ্রহণ এবং প্রান্তিক মানুষের জন্য ভাতা প্রদানে সরকারের প্রতি দাবি জানান মির্জা ফখরুল।

খালেদা জিয়াকে নিরাপদ রাখার দাবি

মির্জা ফখরুল বলেন, আমাদের তরফ থেকে যতটা সম্ভব কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি। খালেো জিয়াকে যেন সম্পূর্ণভাবে নিরাপদ রাখা হয় তার জন্য কথা বলেছি। তারা আমাদেরকে নিশ্চয়তা দিয়েছেন যে সেটা তারা করছেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক রিয়াজউদ্দিন নসু ও চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের কর্মকর্তায় শায়রুল কবির খান।

 

/এএইচআর/এমআর/

লাইভ

টপ