সেকশনস

আদালতে রিমান্ড কনসিডারের অনুরোধ জানান সাহেদ

আপডেট : ১০ আগস্ট ২০২০, ১৪:৪৭

আদালতে মো. সাহেদ ‘স্যার আমি অসুস্থ। আজ ২০ দিন ধরে রিমান্ডে। এখনও ২৭ দিন রিমান্ডে থাকতে হবে। আমার রিমান্ডটা একটু কনসিডার করেন।’ সোমবার (১০ আগস্ট) দুদকের মামলায় ১০ দিনের রিমান্ড শুনানি শেষে বিচারককে লক্ষ্য করে এই অনুরোধ জানান রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো. সাহেদ।

এদিন দুপুর ১২টায় সাহেদকে ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতে হাজির করা হয়। এরপর এক পুলিশকে লক্ষ্য করে তিনি বলেন, ‘স্যার আমার হেলমেড ও হাতকড়া খুলে দেন।’ এরপর তা খুলে দেওয়া হয়। পরে পানি খেতে চায়। এর কিছুক্ষণ পরেই রিমান্ড বিষয়ে শুনানি শুরু হয়। শুরুতে বিচারক তাকে জিজ্ঞেস করেন, তার কোনও আইনজীবী আছে কিনা। তিনি (সাহেদ) বলেন, ‘আমার কোনও আইনজীবী নেই। আমি নিজেই কিছু বলবো।’ সাহেদ বলেন, ‘স্যার আমাদের প্রতিষ্ঠানের নামে ৫০ লাখ টাকার এফডিআর ছিল। আমরা এফডিআর দেখিয়ে ব্যাংক থেকে টাকা নিয়েছি। তার সব এভেডিয়েন্স রয়েছে। আমি কোনও টাকা আত্মসাৎ করিনি।’

এরপর দুদকের পক্ষে আইনজীবী মোশাররফ হোসেন কাজল বলেন, ‘সাহেদ এমআরআই মেশিন কেনার জন্য দুই কোটি টাকার প্রয়োজন বলে ব্যাংক থেকে ঋণ নেন। সেই টাকা দিয়ে মেশিন না কিনে পুরা টাকাই আত্মসাৎ করেন। তাই তার রিমান্ড মঞ্জুর করা হোক।’

শুনানির শেষ পর্যায়ে বিচারককে লক্ষ্য করে রিমান্ড কনসিডারের আবেদন করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে বিচারক সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

আদালত সূত্র জানায়, আজ দুপুর ১২টায় বিশেষ নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে সাহেদকে আদালতে হাজিরের কিছুক্ষণ পরেই শুনানি শুরু হয়। গত বৃহস্পতিবার (৬ আগস্ট) মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সুষ্ঠু তদন্তের প্রয়োজনে সাহেদের ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। ওই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক রিমান্ড শুনানির জন্য সোমবার (১০ আগস্ট) দিন ধার্য করেছিলেন।

এর আগে গত ২৭ জুলাই দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) প্রধান কার্যালয়ের উপসহকারী পরিচালক মোহাম্মদ শাহজাহান মিরাজ বাদী হয়ে সাহেদসহ চার জনের বিরুদ্ধে দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয় ঢাকা-১ মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার অপর আসামিরা হলেন—পদ্মা ব্যাংক লিমিটেড (সাবেক দি ফারমার্স ব্যাংক লিমিটেড)-এর পরিচালনা পর্ষদের নির্বাহী/অডিট কমিটির সাবেক চেয়ারম্যান মো. মাহবুবুল হক চিশতী, বকশীগঞ্জ জুট স্পিনার্স লিমিটেড এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. রাশেদুল হক চিশতি এবং রিজেন্ট হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. ইব্রাহিম খলিল।

মামলার অভিযোগে বলা হয়েছে, আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে অসৎ উদ্দেশ্যে ক্ষমতার অপব্যবহার ও অপরাধজনক বিশ্বাস ভঙ্গ করে অর্থ স্থানান্তর ও রূপান্তরের মাধ্যমে ঋণের নামে পদ্মা ব্যাংক লিমিটেড এর গুলশান করপোরেট শাখা থেকে এক কোটি টাকা (সুদাসলসহ ২ কোটি ৭১ লাখ টাকা) আত্মসাৎ করেন। আসামিদের বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ৪০৯/১০৯ ধারাসহ ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫(২) ধারা এবং মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন-২০১২ এর ৪ ধারায় মামলা দায়ের করা হয়।

প্রসঙ্গত, গত ৬ জুলাই র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলমের নেতৃত্বে রিজেন্ট হাসপাতালের উত্তরা ও মিরপুর কার্যালয়ে অভিযান চালানো হয়। এই সময় পরীক্ষা ছাড়াই করোনার সনদ দিয়ে সাধারণ মানুষের সঙ্গে প্রতারণা ও অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার প্রমাণ পাওয়া যায়। এরপর ৭ জুলাই স্বাস্থ্য অধিদফতরের নির্দেশে রিজেন্ট হাসপাতাল ও তার মূল কার্যালয় সিলগালা করে দেয় র‌্যাব। রিজেন্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান সাহেদসহ ১৭ জনের বিরুদ্ধে ওই দিনই উত্তরা পশ্চিম থানায় মামলা করা হয়। এরপর থেকে সাহেদ পলাতক ছিল। গত ১৫ জুলাই ভোরে ভারতে পালানোর সময় সাতক্ষীরা থেকে তাকে গ্রেফতার করে র‌্যাব।

হাসপাতালে অভিযানের পর থেকে সাহেদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন মাধ্যমে ‍দুদকে অভিযোগ আসতে শুরু করে। এসব অভিযোগ আমলে নিয়ে অনুসন্ধান শুরু করে সংস্থাটি। কমিশনের উপপরিচালক মো. আবু বকর সিদ্দিকের নেতৃত্বে তিন সদস্যের একটি অনুসন্ধান দল গঠন করা হয়। এ দলের অন্য সদস্যরা হলেন—মো. নেয়ামুল হাসান গাজী ও শেখ মো. গোলাম মাওলা।

আরও পড়ুন...

সাহেদ আবারও ৭ দিনের রিমান্ডে
সাহেদ ফের ২৮ দিনের রিমান্ডে

সাহেদ ১০ দিনের রিমান্ডে

আজই ডিএমপিতে হস্তান্তর করা হবে সাহেদকে

‘সাহেদ চতুর, ধুরন্ধর, অর্থলিপ্সু’

ঘন ঘন জায়গা পরিবর্তন করছিলেন সাহেদ

বোরকা পরে সীমান্ত পাড়ি দেওয়ার চেষ্টা করেছিলেন সাহেদ: র‍্যাব 

সাহেদ গ্রেফতার 

সাহেদের খোঁজে সাতক্ষীরাজুড়ে দিনরাত চলে চিরুনি অভিযান
প্রতারণার জগতে সাহেদ আইডল: র‌্যাব

সাহেদ ও সাবরিনার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি

মৌলভীবাজারে খোঁজ মেলেনি সাহেদের 

রিজেন্ট হাসপাতালের প্রতারণা মামলা ডিবিতে

রিজেন্ট গ্রুপের এমডি মাসুদ গ্রেফতার

রিজেন্টের সঙ্গে স্বাস্থ্য অধিদফতর চুক্তি করে মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে

সাহেদের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

যেভাবে উত্থান সাহেদের

সাহেদের অপরাধের বিচার চান স্ত্রীও

রিজেন্ট হাসপাতালের ভবনগুলো দখল করেছিলেন সাহেদ

/আইএ/

সম্পর্কিত

বাহরাইন প্রবাসী বাংলাদেশিদের ফেরত পাঠানোর চেষ্টা করছে সরকার

বাহরাইন প্রবাসী বাংলাদেশিদের ফেরত পাঠানোর চেষ্টা করছে সরকার

ফরিদপুরের সেই দুই ভাইকে হাইকোর্টের জামিন

ফরিদপুরের সেই দুই ভাইকে হাইকোর্টের জামিন

পাতা কুড়াতে গিয়ে লাশ হয়ে ফিরলো শিশু

পাতা কুড়াতে গিয়ে লাশ হয়ে ফিরলো শিশু

‘ই-নামজারি ও মিসকেস মামলার শুনানি হবে ভিডিও কনফারেন্সে’

‘ই-নামজারি ও মিসকেস মামলার শুনানি হবে ভিডিও কনফারেন্সে’

এমপিওভুক্তির সুপারিশ পেয়েছেন ১২১০ জন, বিএড স্কেল ৯০৮ জন

এমপিওভুক্তির সুপারিশ পেয়েছেন ১২১০ জন, বিএড স্কেল ৯০৮ জন

প্রধানমন্ত্রীর দফতরের নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি, এশিয়ানের শিক্ষার্থী বহিষ্কার

প্রধানমন্ত্রীর দফতরের নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি, এশিয়ানের শিক্ষার্থী বহিষ্কার

শিশু ধর্ষণের দায়ে একজনের যাবজ্জীবন

শিশু ধর্ষণের দায়ে একজনের যাবজ্জীবন

বন্ধুদের নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা

বন্ধুদের নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা

সর্বশেষ

বাউফলে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

বাউফলে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

আগুন তাপাতে গিয়ে অন্তঃসত্ত্বা নারী দগ্ধ

আগুন তাপাতে গিয়ে অন্তঃসত্ত্বা নারী দগ্ধ

উপজেলা পরিষদকে কার্যকর করার দাবি  সংবাদ সম্মেলন

উপজেলা পরিষদকে কার্যকর করার দাবি  সংবাদ সম্মেলন

বৃহত্তর চান্দগাঁও-মোহরাকে আধুনিক উপশহর করার প্রতিশ্রুতি ডা. শাহাদাতের

বৃহত্তর চান্দগাঁও-মোহরাকে আধুনিক উপশহর করার প্রতিশ্রুতি ডা. শাহাদাতের

হকারদের সুস্পষ্ট নীতিমালা করে পুনর্বাসন করা হবে: রেজাউল করিম চৌধুরী

হকারদের সুস্পষ্ট নীতিমালা করে পুনর্বাসন করা হবে: রেজাউল করিম চৌধুরী

কাউকেই নির্বাচনি সহিংসতা ঘটাতে দেওয়া হবে না: সিএমপি কমিশনার

কাউকেই নির্বাচনি সহিংসতা ঘটাতে দেওয়া হবে না: সিএমপি কমিশনার

নীলফামারীতে পৃথকভাবে ৩৫০ জনের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ

নীলফামারীতে পৃথকভাবে ৩৫০ জনের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ

জোহরা আলাউদ্দিন এমপি করোনায় আক্রান্ত

জোহরা আলাউদ্দিন এমপি করোনায় আক্রান্ত

ইয়াবা ও ফেনসিডিল উদ্ধার, কারবারি গ্রেফতার

ইয়াবা ও ফেনসিডিল উদ্ধার, কারবারি গ্রেফতার

কলাবাগানে কিশোরীকে ধর্ষণ ও হত্যার প্রতিবাদে সহপাঠীদের দেয়াল লিখন

কলাবাগানে কিশোরীকে ধর্ষণ ও হত্যার প্রতিবাদে সহপাঠীদের দেয়াল লিখন

বাস-ট্রাক মুখোমুখি, চালক নিহত

বাস-ট্রাক মুখোমুখি, চালক নিহত

৬০ দিনে নিষ্পত্তির বিধান সত্ত্বেও মামলা ঝুলে আছে ১৩ বছর

৬০ দিনে নিষ্পত্তির বিধান সত্ত্বেও মামলা ঝুলে আছে ১৩ বছর

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ফরিদপুরের সেই দুই ভাইকে হাইকোর্টের জামিন

ফরিদপুরের সেই দুই ভাইকে হাইকোর্টের জামিন

‘ই-নামজারি ও মিসকেস মামলার শুনানি হবে ভিডিও কনফারেন্সে’

‘ই-নামজারি ও মিসকেস মামলার শুনানি হবে ভিডিও কনফারেন্সে’

এমপিওভুক্তির সুপারিশ পেয়েছেন ১২১০ জন, বিএড স্কেল ৯০৮ জন

এমপিওভুক্তির সুপারিশ পেয়েছেন ১২১০ জন, বিএড স্কেল ৯০৮ জন

প্রধানমন্ত্রীর দফতরের নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি, এশিয়ানের শিক্ষার্থী বহিষ্কার

প্রধানমন্ত্রীর দফতরের নাম ভাঙিয়ে চাঁদাবাজি, এশিয়ানের শিক্ষার্থী বহিষ্কার

বন্ধুদের নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা

বন্ধুদের নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগে স্বামীর বিরুদ্ধে মামলা

বাংলাদেশি শিক্ষার্থী ফ্রান্সে গিয়ে জড়ালো জঙ্গিবাদে!

বাংলাদেশি শিক্ষার্থী ফ্রান্সে গিয়ে জড়ালো জঙ্গিবাদে!


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.