X
মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪
১১ আষাঢ় ১৪৩১

ঢাকা কলেজে সাংবাদিক নির্যাতন: প্রশাসনকে ৪৮ ঘণ্টার আল্টিমেটাম

আতিক হাসান শুভ
০২ অক্টোবর ২০২৩, ২০:০৪আপডেট : ০২ অক্টোবর ২০২৩, ২০:১৮

ঢাকা কলেজের ছাত্রাবাসে সম্প্রতি দুই সাংবাদিককে নির্যাতনের ঘটনায় দোষীদের বিচারের দাবিতে প্রতিবাদী অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন ঢাকা কলেজের সাধারণ শিক্ষার্থীরা। সোমবার (২ অক্টোবর) কলেজ ক্যাম্পাসের প্রধান ফটকে সাধারণ শিক্ষার্থীরা এই কর্মসূচি পালন করেন। কর্মসূচি থেকে দোষীদের ছাত্রত্ব বাতিলসহ ছয় দফা দাবি আদায়ে ক্যাম্পাস প্রশাসনকে ৪৮ ঘণ্টা সময় বেধে দিয়ে আল্টিমেটামও দেওয়া হয়েছে।

শিক্ষার্থীদের ছয় দফা দাবি হলো– ক্যাম্পাসে সব শিক্ষার্থীর জন্য নিরাপদ পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে, আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে শহীদ ফরহাদ ছাত্রাবাসে দুই শিক্ষার্থীকে নির্যাতনের ঘটনায় দোষীদের সবার ছাত্রত্ব বাতিল করতে হবে, ছাত্রদের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ শহীদ ফরহাদ হলের হল সুপারকে প্রত্যাহার করতে হবে, মেধা ও প্রয়োজনীয়তার বিবেচনায় প্রথম বর্ষ থেকে ছাত্রাবাসে বৈধ সিট নিশ্চিত করতে হবে, গেস্টরুম বা গণরুম কালচার নিষিদ্ধ করতে হবে, অছাত্রদের হল থেকে বের করে ছাত্রদের সুযোগ দিতে হবে।

কর্মসূচিতে অংশ নিয়ে ঢাকা কলেজের ইংরেজি বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী আবু নাঈম নোমান লিখিত বক্তব্যে বলেন, ‘দুই শিক্ষার্থীকে নির্যাতনের ঘটনায় বাংলাদেশ ছাত্রলীগ তাদের সাংগঠনিক ব্যবস্থা নিলেও গত ছয় দিনে কোনও ব্যবস্থা নেয়নি ক্যাম্পাস প্রশাসন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে সাধারণ শিক্ষার্থীরা এই প্রতিবাদী অবস্থান কর্মসূচি পালন করছে।’

ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থীকে গেস্টরুমে নির্যাতনের ঘটনায় জড়িত ছাত্রলীগ নেতাদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করায় কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগকে ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, ‘ঢাকা কলেজের ছাত্রাবাসে নিয়মিত র‌্যাগিংয়ের শিকার হচ্ছে সাধারণ ছাত্ররা। বিশেষ করে দলীয় কর্মসূচিতে অংশ না নেওয়ায় বিভিন্ন সময় নির্যাতনের শিকার হয়েছে অসংখ্য শিক্ষার্থী। এই ভয়ে অনেক শিক্ষার্থী ছাত্রাবাসে ওঠার সাহস করে না। যারা ওঠে তারাও নেতানামীয় কিছু বড় ভাইয়ের দ্বারা দিনের পর দিন নির্যাতিত হয়ে আসছে। কিন্তু ভয়ে মুখ খোলার সাহস পাচ্ছে না। আজ  ছয় দিন পার হতে চলছে। কিন্তু এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত দোষীদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নেয়নি ক্যাম্পাস প্রশাসন। আমাদের প্রশ্ন, তাদের হাত-পা কোথায় বাঁধা, তারা এখন পর্যন্ত কেন কোনেও ব্যবস্থা নেয়নি?’

ক্যাম্পাসে সাধারণ ছাত্রদের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে আন্দোলনকারী সাধারণ শিক্ষার্থীরা বলেন, যাদের দুজনকে নির্যাতন করা হয়েছে তারা দুজনই সাংবাদিক এবং ঢাকা কলেজ সাংবাদিক সমিতির সদস্য। স্বাভাবিকভাবেই বোঝা যায়, যে ক্যাম্পাসে সাংবাদিকরাই নিরাপদ নয়, যেখানে রাতভর একজন মানুষকে রুমে আটকে নির্যাতন করার পরও প্রশাসন জানে না, কোনও ব্যবস্থা নেয় না, সেখানে সাধারণ শিক্ষার্থীরা কতটুকু নিরাপদে পড়ালেখা করতে পারে এবং কতটুকু নিরাপদে থাকে?

প্রতিবাদী অবস্থানে সাধারণ শিক্ষার্থীর উপস্থিত কম হওয়ায় বিষয়ে আন্দোলনকারীরা বলেন, এই প্রতিবাদী কর্মসূচিতে অংশ নিতে বন্ধের দিনেও বহু শিক্ষার্থী ক্যাম্পাসে এসেছে। কিন্তু সিনিয়র নেতারা শো-ডাউন করে হুমকি দিচ্ছে, তাই সবাই দাঁড়ানোর সাহস করেনি। আমাদের এই প্রতিবাদ কোনও দল বা নেতার বিরুদ্ধে নয়। আমরা প্রতিবাদ করছি গুটিকয়েক সন্ত্রাসীর বিরুদ্ধে।

ঢাকা কলেজের ছাত্রাবাসে সাংবাদিক নির্যাতনের ঘটনায় ঢাকা কলেজে অধ্যক্ষ অধ্যাপক আবু ইউসুফ বলেন, ‘এ ঘটনার একদিন পরেই আমরা তদন্ত কমিটি গঠন করেছি। তদন্ত কমিটিকে আগামী বুধবার পর্যন্ত সময় দেওয়া হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদন হাতে পাওয়া মাত্রই আমরা এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেবো। যদি এই তদন্তে কোনও ধরনের ঘাটতি থাকে দরকার হলে আমরা অধিকতর তদন্তের স্বার্থে আবারও কমিটি গঠন করবো।’

এর আগে, গত ২৮ সেপ্টেম্বর রাতে ঢাকা কলেজের শহীদ মো. ফরহাদ ছাত্রাবাসের গেস্টরুমে ছাত্রদের আহ্বান করে সেই হলের ছাত্রলীগ নেতারা। এ সময় সেখানে যেতে দেরি করায় ওই হলের আবাসিক শিক্ষার্থী, কলেজের ইংরেজি বিভাগের অনার্স দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র এবং ডেইলি বাংলাদেশের ঢাকা কলেজ প্রতিনিধি ফয়সাল আহমেদকে মারধর করা হয়।

এ ঘটনায় গণমাধ্যমে সংবাদ প্রচারের কারণে একই ছাত্রাবাসের আবাসিক শিক্ষার্থী ও ঢাকা কলেজ সাংবাদিক সমিতির দফতর সম্পাদক ওবাইদুর সাঈদকে ৩০ সেপ্টেম্বর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে ছাত্রলীগ নেতারা‌। এ ঘটনায় গণমাধ্যমে তীব্র সমালোচনার মুখে ঢাকা কলেজ ছাত্রলীগের কর্মী রাউফুর রহমান ওরফে সোহেল, এ বি এম আলামিন, সজিব আহসান, আবরার হোসাইন ওরফে সাগর, সৈয়দ আব্দুল্লাহ শুভ ও ফাহমিদ হাসান ওরফে পলাশকে সংগঠন থেকে বহিষ্কার করে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ।

আরও পড়ুন...

সাংবাদিক নির্যাতনের ঘটনায় ঢাকা কলেজ ছাত্রলীগের ৬ কর্মী বহিষ্কার

ঢাকা কলেজের সাংবাদিককে আটকে রেখে নির্যাতনের অভিযোগ ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে

ঢাকা কলেজে ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে সাংবাদিক নির্যাতনের অভিযোগ 

 

/আরকে/
সম্পর্কিত
কেউ সমালোচনা করলেই ভীত হতে হবে, বিশ্বাস করি না: প্রধানমন্ত্রী
শিক্ষার্থীদের কর্মযোগ্যতা বৃদ্ধির আহ্বান শিক্ষামন্ত্রীর
কেন পাস করতে পারছে না লাখো শিক্ষার্থী, তদন্তের তাগিদ
সর্বশেষ খবর
এমপি আনার হত্যা: গ্যাস বাবুকে ঝিনাইদহ কারাগারে স্থানান্তর
এমপি আনার হত্যা: গ্যাস বাবুকে ঝিনাইদহ কারাগারে স্থানান্তর
ভারত ইস্যুতে সক্রিয় বিএনপিসহ বিরোধী দল ও হেফাজত, কর্মসূচি আসছে
ভারত ইস্যুতে সক্রিয় বিএনপিসহ বিরোধী দল ও হেফাজত, কর্মসূচি আসছে
সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্নীতি নিয়ে সংসদে সরব আ.লীগের দুই এমপি
সরকারি কর্মকর্তাদের দুর্নীতি নিয়ে সংসদে সরব আ.লীগের দুই এমপি
কেনিয়ায় বিক্ষোভ: বারাক ওবামার সৎ বোনের ওপর কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ
কেনিয়ায় বিক্ষোভ: বারাক ওবামার সৎ বোনের ওপর কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ
সর্বাধিক পঠিত
বানের পানির মতো আসছে রেমিট্যান্স, পাচারের অর্থও কি সঙ্গে আসছে?
বানের পানির মতো আসছে রেমিট্যান্স, পাচারের অর্থও কি সঙ্গে আসছে?
পরীমণিকাণ্ডে চাকরি হারাচ্ছেন পুলিশ কর্মকর্তা সাকলায়েন
পরীমণিকাণ্ডে চাকরি হারাচ্ছেন পুলিশ কর্মকর্তা সাকলায়েন
ইসরায়েলি অভিযান নিয়ে হিজবুল্লাহকে যে সতর্কবার্তা দিলো যুক্তরাষ্ট্র
ইসরায়েলি অভিযান নিয়ে হিজবুল্লাহকে যে সতর্কবার্তা দিলো যুক্তরাষ্ট্র
কোরবানির ১ লাখ ৭২ হাজার পশুর চামড়া গেলো কোথায়?
কোরবানির ১ লাখ ৭২ হাজার পশুর চামড়া গেলো কোথায়?
‘মমতা ব্যানার্জির সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেছি, তিনি মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন না’
‘মমতা ব্যানার্জির সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেছি, তিনি মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন না’