X
রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪
১ বৈশাখ ১৪৩১

র‍্যাংকিং সম্পর্কিত প্রশ্নোত্তর

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
২৫ মে ২০১৯, ১৫:২৫আপডেট : ২৫ মে ২০১৯, ১৭:০১

র‌্যাংকিং নিয়ে প্রশ্ন-উত্তর

ইউনিভার্সিটিতে ভর্তির সময় সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষেত্রে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের সহায়তা করার লক্ষ্যে বাংলা ট্রিবিউন-ঢাকা ট্রিবিউন প্রাইভেট ইউনিভার্সিটি র‍্যাংকিং- ২০১৯ প্রকাশ করা হয়েছে। আন্তর্জাতিক মান বজায় রেখে এই র‍্যাংকিংয়ের গবেষণা পদ্ধতি নিরূপণ করা হয়। গবেষণায় প্রাপ্ত শীর্ষ ২০টি ইউনিভার্সিটির তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। এই র‍্যাংকিং নিয়ে প্রাথমিক কিছু প্রশ্নের উত্তর নিম্নে দেওয়া হলো। 

১. কেন এই র‍্যাংকিং?

আমরা ইউনিভার্সিটিগুলোকে নিজেদের বর্তমান অবস্থান ও তার উন্নয়নে কী কী পদক্ষেপ নেওয়া যেতে পারে, সে বিষয়ে জানাতে চাই। উচ্চশিক্ষার সামগ্রিক উন্নয়নে এই র‍্যাংকিং অবদান রাখবে, যা পুরো দেশের জন্য মঙ্গলজনক।

২. এই র‍্যাংকিং শিক্ষার্থীদের কী উপকারে লাগবে?

তারা সিদ্ধান্ত নিতে পারবে কোন ইউনিভার্সিটি তাদের জন্য ভালো হবে। একইসঙ্গে আর্থিক বিষয়টিও এরসঙ্গে সম্পৃক্ত। যেসব ইউনিভার্সিটির খরচ তারা বহন করতে পারবে, তার মধ্যে সবচেয়ে যেটি ভালো, সেটাতে ভর্তি হওয়ার চেষ্টা করবে। এমন হতে পারে যে, একজন ছাত্র শীর্ষ র‍্যাংকিংয়ের ইউনিভার্সিটির খরচ জোগান দিতে অক্ষম, তখন তারা এই র‍্যাংকিং থেকে সামর্থ্যের মধ্যে ভালো একটিকে পছন্দ করতে পারবে।

৩. এই র‍্যাংকিংয়ে কেন ২০টি ইউনিভার্সিটিকে বিবেচনা করা হয়েছে?

বাংলাদেশে ১০১টি প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির মধ্যে মাত্র ৩৬টি প্রয়োজনীয় শর্তাবলি পূরণ করতে পেরেছে। বাকিগুলোর মধ্যে কিছু কয়েকটি  সরকারের কালো তালিকার অন্তর্ভুক্ত, কোনও কোনও ইউনিভার্সিটিতে এখনও কোনও সমাবর্তন হয়নি, কিছু ইউনিভার্সিটি  মাত্র একটি বা বিশেষায়িত বিষয় পড়ায় এবং আবার কোনোটিতে শিক্ষার্থী-সংখ্যা খুবই কম।

৪. কিসের ভিত্তিতে এই র‍্যাংকিং?

এই র‍্যাংকিং ইউনিভার্সিটি-শিক্ষকের সংখ্যা, গবেষণা, ক্যাম্পাস, শিক্ষা কার্যক্রম, লাইব্রেরির অবস্থা, পাস করা শিক্ষার্থীদের সম্পর্কে শিক্ষক ও চাকরিদাতাদের ভাবনার ভিত্তিতে করা হয়েছে।

৫. পারসেপচুয়াল ও ফ্যাকচুয়াল ৬০:৪০ কেন হলো?

যেহেতু ইউজিসি থেকে সর্বশেষ যে তথ্য পাওয়া যায়, তা ২০১৭ সালের এবং পুরোপুরি নির্ভুল ফ্যাকচুয়াল তথ্য পাওয়া যায় না।  যেহেতু সিদ্ধান্ত গ্রহণে পারসেপশন বা ধারণা উল্লেখযোগ্যভাবে ভূমিকা রাখে, তাই অনুপাত নির্ধারণের ক্ষেত্রে ফ্যাকচুয়াল তথ্যের চেয়ে পারসেপশন তথ্যকে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। 

/এসএএস/এমওএফ/এমএনএইচ/
নারী অভিবাসীদের নিয়ে ৭৯ ভাগ খবরই নেতিবাচক
নারী অভিবাসীদের নিয়ে ৭৯ ভাগ খবরই নেতিবাচক
‘করোনায় কর্মসংস্থান হারালেও ঘুরে দাঁড়ানো সম্ভব’
‘করোনায় কর্মসংস্থান হারালেও ঘুরে দাঁড়ানো সম্ভব’
নদীর দু’পাশে করোনা সংক্রমণের এত পার্থক্য কেন?
নদীর দু’পাশে করোনা সংক্রমণের এত পার্থক্য কেন?
বাড়ছে না ছুটি, ঢাকার সামনে কী অপেক্ষা করছে?
বাড়ছে না ছুটি, ঢাকার সামনে কী অপেক্ষা করছে?
টেস্ট ও রোগী দুটোই বেড়েছে: কতটা বেড়েছে?
টেস্ট ও রোগী দুটোই বেড়েছে: কতটা বেড়েছে?
করোনা আক্রান্ত ঢাকায় অবাধ চলাচল ডেকে আনবে মহাবিপদ
করোনা আক্রান্ত ঢাকায় অবাধ চলাচল ডেকে আনবে মহাবিপদ
আইইডিসিআর’র তথ্যে অসঙ্গতি কেন?
আইইডিসিআর’র তথ্যে অসঙ্গতি কেন?
‘কোভিড-১৯ মে মাসে শেষ হবে’: বৈজ্ঞানিক বাস্তবতায় অন্য কিছুর ইঙ্গিত
‘কোভিড-১৯ মে মাসে শেষ হবে’: বৈজ্ঞানিক বাস্তবতায় অন্য কিছুর ইঙ্গিত
ইসরায়েলকে সমর্থন দিয়ে আঞ্চলিক যুদ্ধের ঝুঁকি নিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র: আরব আমেরিকান দল
ইসরায়েলকে সমর্থন দিয়ে আঞ্চলিক যুদ্ধের ঝুঁকি নিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র: আরব আমেরিকান দল
হালখাতার ইতিহাস জানেন?
হালখাতার ইতিহাস জানেন?
আরব সাগর তীরে বাড়ি কিনলেন পূজা
আরব সাগর তীরে বাড়ি কিনলেন পূজা
বাংলাদেশে আশ্রয় নিলেন মিয়ানমারের আরও ৯ বিজিপি সদস্য
বাংলাদেশে আশ্রয় নিলেন মিয়ানমারের আরও ৯ বিজিপি সদস্য
বাইসাইকেল কিকে বার্সাকে জিতিয়ে প্রশংসায় ভাসলেন ফেলিক্স
বাইসাইকেল কিকে বার্সাকে জিতিয়ে প্রশংসায় ভাসলেন ফেলিক্স
সাক্ষীতেই আটকে আছে বর্ষবরণে যৌন হয়রানি মামলার বিচার
সাক্ষীতেই আটকে আছে বর্ষবরণে যৌন হয়রানি মামলার বিচার
ইসরায়েলকে সমর্থনের প্রতিশ্রুতি বাইডেনের
ইসরায়েলকে সমর্থনের প্রতিশ্রুতি বাইডেনের
রেকর্ড দর্শকের সামনে মেসি-সুয়ারেজের গোলে মায়ামির জয়
রেকর্ড দর্শকের সামনে মেসি-সুয়ারেজের গোলে মায়ামির জয়
সর্বশেষসর্বাধিক