X
বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২
২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

শেয়ার বাজারের জন্য সুখবর নেই, তবু আশা ঘুরে দাঁড়ানোর

গোলাম মওলা
১০ জুন ২০২২, ২৩:০০আপডেট : ১০ জুন ২০২২, ২৩:০০

সাধারণত বাজেট উপস্থাপনের দিন শেয়ার বাজারে উত্থান দেখা গেলেও এবার ব্যতিক্রম ছিল। বৃহস্পতিবার (৯ জুন) ২০২২-২৩ অর্থবছরের বাজেট উপস্থাপনের দিন পতনের ধারায় শেষ হয়েছে শেয়ার বাজারের লেনদেন। বাজেটের আগে বলা হচ্ছিল, এবারের বাজেট পুঁজিবাজারবান্ধব হবে। কিন্তু বিনিয়োগকারীদের মধ্যে বাজেট উপস্থাপনের দিন তেমন উৎসাহ দেখা যায়নি। ফলে এদিন বাজারে পতন হয়েছে বলে মনে করেন বাজার সংশ্লিষ্টরা।

বৃহস্পতিবার (৯ জুন) প্রধান শেয়ার বাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৩ দশমিক ৯৪ পয়েন্ট বা ০ দশমিক ০৬ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৪৮০ দশমিক ৩০ পয়েন্টে। ডিএসইর অপর সূচকগুলোর মধ্যে ডিএসই-৩০ সূচক ১ দশমিক ২৬ পয়েন্ট বা ০ দশমিক ০৫ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ৩৫২ দশমিক ৩৮ পয়েন্টে। তবে শরিয়াহ সূচক ০ দশমিক ৭৯ পয়েন্ট বা ০ দশমিক ০৫ শতাংশ বেড়ে ১ হাজার ৪১৩ দশমিক ৭৪ পয়েন্টে দাঁড়ায়। ডিএসইতে গতকাল টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ৭৫৮ কোটি ২৬ লাখ টাকার, যা আগের কার্যদিবস থেকে ১৬১ কোটি ৩৯ লাখ টাকা কম। আগের কার্যদিবস লেনদেন হয়েছিল ৯১৯ কোটি ৬৫ লাখ টাকার।

অর্থমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী, ২০২২-২৩ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটে পুঁজিবাজারে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ থাকছে না। যদিও সরকার গত বছর পুঁজিবাজারে এক বছর বিনিয়োগ রাখার শর্তে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ অব্যাহত রেখেছিল। একইসঙ্গে এই নিশ্চয়তা দেওয়া হয়েছিল, যারা অপ্রদর্শিত আয়ের টাকা বৈধ করে নেবে, তাদের কাছে অর্থের উৎস সম্পর্কে কোনও কর্তৃপক্ষই জানতে চাইবে না।

অবশ্য এবারের বাজেটে শেয়ার বাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানির কর ২ দশমিক ৫ শতাংশ কমানোর ঘোষণা এসেছে। এক্ষেত্রে শর্ত দেওয়া হয়েছে, এই কোম্পানিটির কমপক্ষে ১০ শতাংশ শেয়ার আইপিওর মাধ্যমে বাজারে তালিকাভুক্ত থাকতে হবে। এ ছাড়াও কোম্পানি সব ধরনের আয় এবং বছরে ১২ লাখ টাকার ওপরে সব ধরনের ব্যয় ব্যাংকের মাধ্যমে হতে হবে।

এদিকে শেয়ার বাজারে তারল্য বাড়ানোর পাশাপাশি সাধারণ বিনিয়োগকারীদের দীর্ঘমেয়াদি বিনিয়োগ অভ্যাস গড়ে তুলতে নতুন সিদ্ধান্ত নিয়েছে শেয়ার বাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি। বিএসইসি অনুযায়ী এখন থেকে আইপিও শেয়ার কিনতে আগেই শেয়ার বাজারে অন্তত ৫০ হাজার টাকার বিনিয়োগ থাকতে হবে। প্রবাসী বাংলাদেশিদের ক্ষেত্রে বিনিয়োগ থাকতে হবে ১ লাখ টাকার। আইপিও আবেদনের প্রাক-যোগ্যতা হিসেবে নতুন এ শর্ত আরোপের সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিএসইসি। গত ৮ জুন কমিশন সভায় এ সিদ্ধান্ত হয়েছে। এর আগ পর্যন্ত শেয়ার বাজারে ২০ হাজার টাকার বিনিয়োগ থাকলে আইপিওতে আবেদন করতে পারতেন সাধারণ বিনিয়োগকারীরা।

এদিকে বাজারের তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, গত সপ্তাহে লেনদেন হওয়া পাঁচ কার্যদিবসের মধ্যে তিনদিনই দেশের শেয়ার বাজারে দরপতন হয়েছে। তবে গত সপ্তাহে প্রধান শেয়ার বাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) বাজার মূলধন আড়াই হাজার কোটি টাকার উপরে বেড়েছে। আগের সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন বেড়েছিল ১২ হাজার কোটি টাকার ওপরে। এতে দুই সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন প্রায় ১৫ হাজার কোটি টাকা বাড়লো।

সর্বশেষ সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসের লেনদেন শেষে ডিএসইর বাজার মূলধন দাঁড়িয়েছে পাঁচ লাখ ২২ হাজার ৮৮১ কোটি টাকা। যা তার আগের সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ছিল পাঁচ লাখ ২০ হাজার ২৭৭ কোটি টাকা। অর্থাৎ গত সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন বেড়েছে দুই হাজার ৬০৪ কোটি টাকা। আগের সপ্তাহে বাজার মূলধন বাড়ে ১২ হাজার ২৭৫ কোটি টাকা। অর্থাৎ দুই সপ্তাহে বাজার মূলধন বাড়লো ১৪ হাজার ৮৭৯ কোটি টাকা। অবশ্য এর আগে শেয়ার বাজারে টানা দরপতন হলে দুই সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন কমে যায় ২৩ হাজার কোটি টাকা।

বাজারের তথ্য বলছে, বাজার মূলধন বাড়ার পাশাপাশি গত সপ্তাহে ডিএসইতে অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দাম বাড়ার তালিকায় নাম লিখিয়েছে। সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া ২০৬টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট দাম বাড়ার তালিকায় নাম লিখিয়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১৫৭টির। আর ২৬টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

এতে গত সপ্তাহে ডিএসইর প্রধান মূল্যসূচক ডিএসইএক্স বেড়েছে ২৮ দশমিক ৭৭ পয়েন্ট। আগের সপ্তাহে সূচকটি বেড়েছিল ২১৩ দশমিক ৫৫ পয়েন্ট। অবশ্য তার আগে টানা চার সপ্তাহের পতনে সূচকটি কমেছিল ৪২৩ পয়েন্ট।

এদিকে প্রধান মূল্যসূচক বাড়লেও গত সপ্তাহে বাছাই করা ভালো কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই-৩০ সূচক কমেছে। গত সপ্তাহজুড়ে এই সূচকটি কমেছে তিন দশমিক ৩০ পয়েন্ট। আগের সপ্তাহে সূচকটি বেড়েছিল ৪৮ দশমিক ৩০ পয়েন্ট।

ভালো কোম্পানি নিয়ে গঠিত বাছাই করা সূচকের পাশাপাশি ইসলামি শরিয়াহ ভিত্তিতে পরিচালিত কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই শরিয়াহ্ সূচকও গত সপ্তাহে কমেছে। গত সপ্তাহে এই সূচকটি কমেছে এক দশমিক ৯৮ পয়েন্ট। আগের সপ্তাহে সূচকটি বাড়ে ৪২ দশমিক শূন্য ১ পয়েন্ট।

গত সপ্তাহের প্রতি কার্যদিবসে ডিএসইতে গড়ে লেনদেন হয়েছে ৮৬৮ কোটি ৩৮ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে প্রতিদিন গড়ে লেনদেন হয় ৭৮৫ কোটি ২২ লাখ টাকা। অর্থাৎ প্রতি কার্যদিবসে গড় লেনদেন বেড়েছে ৮৩ কোটি ১৬ লাখ টাকা।

এদিকে, সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ৪ হাজার ৩৪১ কোটি ৯১ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ৩ হাজার ৯২৬ কোটি ১২ লাখ টাকা। সেই হিসাবে মোট লেনদেন বেড়েছে ৩১৫ কোটি ৭৯ লাখ টাকা।

গত সপ্তাহে ডিএসইতে টাকার অংকে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে বেক্সিমকোর শেয়ার। সপ্তাহজুড়ে এই কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ২১০ কোটি ৪১ লাখ ৭৬ হাজার টাকা, যা মোট লেনদেনের চার দশমিক ৮৫ শতাংশ।

/এমআর/
টাইমলাইন: জাতীয় বাজেট ২০২২-২৩
১০ জুন ২০২২, ২৩:০০
শেয়ার বাজারের জন্য সুখবর নেই, তবু আশা ঘুরে দাঁড়ানোর
১০ ডিসেম্বরের সমাবেশ উন্মুক্ত স্থানে করতে বিএনপিকে আবারও অনুরোধ
১০ ডিসেম্বরের সমাবেশ উন্মুক্ত স্থানে করতে বিএনপিকে আবারও অনুরোধ
নিউজিল্যান্ডের কাছে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ
নিউজিল্যান্ডের কাছে হোয়াইটওয়াশ বাংলাদেশ
নোয়াখালী মুক্ত দিবস আজ
নোয়াখালী মুক্ত দিবস আজ
পাওয়ার প্লেতেই এনামুল-লিটনের বিদায়  
পাওয়ার প্লেতেই এনামুল-লিটনের বিদায়  
সর্বাধিক পঠিত
রোনালদোর পরিবর্তে দলে জায়গা পেয়ে হ্যাটট্রিক গোঞ্জালো রামোসের
রোনালদোর পরিবর্তে দলে জায়গা পেয়ে হ্যাটট্রিক গোঞ্জালো রামোসের
প্রথম একাদশ থেকে বাদ, বেঞ্চে রোনালদো
প্রথম একাদশ থেকে বাদ, বেঞ্চে রোনালদো
বল ওনাদের কোর্টে, কী সমঝোতা বলবেন তারাই: মির্জা ফখরুল
নয়া পল্টনে গণসমাবেশের অনুমতি পাচ্ছে বিএনপি?বল ওনাদের কোর্টে, কী সমঝোতা বলবেন তারাই: মির্জা ফখরুল
‘অটোরিকশাকে ট্রেনের টেনে নেওয়া দেখে ভয়ে চিল্লান দিছিলাম’
‘অটোরিকশাকে ট্রেনের টেনে নেওয়া দেখে ভয়ে চিল্লান দিছিলাম’
২০৪ কোটি টাকা পাচার, ব্যবসায়ীর বিদেশযাত্রায় নিষেধাজ্ঞা
২০৪ কোটি টাকা পাচার, ব্যবসায়ীর বিদেশযাত্রায় নিষেধাজ্ঞা