X
বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

ইভ্যালির পরিচালনা পর্ষদ ও গ্রাহকদের যা মেনে চলতে হবে

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ১৪:০০

বিশাল মূল্যছাড় ও চোখ ধাঁধানো বিজ্ঞাপনে ই-কমার্স জগতে অল্প সময়েই ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল ইভ্যালি। তবে বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে নির্ধারিত সময়ে, এমনকি সময় পেরিয়ে দীর্ঘ দিন অপেক্ষার পরও পণ্য না পাওয়া নিয়ে গ্রাহক মনে অসন্তোষ বাড়তে থাকে। ফলে ‘প্রতারিত’ গ্রাহকদের বিভিন্ন মামলায় জেলে যেতে হয়েছে কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও চেয়ারম্যানকে। প্রতিষ্ঠানটিতে ‘লগ্নি করা’ অর্থ তুলে আনতে এখন গ্রাহকরা ছুঁটছেন এক আদালত থেকে অন্য আদালতে। তবে আইন অনুসারে কোম্পানিটি অবসায়ন না করে তা পরিচালনায় সম্প্রতি একটি কমিটি গঠন করে দিয়েছে হাইকোর্ট।
 
গত ১৮ অক্টোবর ইভ্যালি পরিচালনার জন্য সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের সাবেক বিচারপতি এইচ এম সামসুদ্দিন চৌধুরী মানিককে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের ওই কমিটি গঠন করে দেন হাইকোর্ট। কমিটির অন্য সদস্যদের মধ্যে রয়েছেন- সাবেক সচিব মোহাম্মদ রেজাউল আহসান, মাহবুব কবীর মিলন, চার্টার্ড অ্যাকাউন্টেন্ট ফখরুদ্দিন আহম্মেদ এবং ব্যারিস্টার খান মোহাম্মদ শামীম আজিজ। এরপর গত ২১ অক্টোবর প্রকাশিত লিখিত আদেশে সংশ্লিষ্ট কর্মপন্থা ঠিক করে দেন হাইকোর্ট।
 
ইভ্যালি নিয়ে হাইকোর্ট তার আদেশে বলেন, কোম্পানির শেয়ারহোল্ডার ও পরিচালকরা কারাগারে থাকার কারণে বোর্ড মিটিং করতে পারছেন না, তাই আদালত উপযুক্ত মনে করায় ১৯৯৪ সালের কোম্পানি আইনের ৮৫(৩) ধারা অনুসারে একটি পরিচালনা পর্ষদ গঠন করে দিয়েছে।

কোম্পানি আইনের ৮৫(৩) ধারায় বলা হয়েছে, ‘যদি অনুমোদনযোগ্য কোনও পদ্ধতিতেই সভা আহ্বান করা সম্ভব না হয় অথবা যদি সংঘবিধি বা এই আইন দ্বারা নির্ধারিত পদ্ধতিতে উক্ত কোম্পানির সভা পরিচালনা করা সম্ভব না হয়, তাহলে আদালত, তার নিজ উদ্যোগে অথবা উক্ত সভায় ভোটদানের অধিকারী হবেন কোম্পানির এমন কোনও পরিচালক বা সদস্যের আবেদনক্রমে, যে পদ্ধতি উপযুক্ত মনে করবে সেই পদ্ধতিতে উক্ত কোম্পানির সভা আহ্বান, অনুষ্ঠান ও পরিচালনার জন্য আদেশ দিতে পারবে; এবং এই আদেশ দানের ক্ষেত্রে, আদালত সমীচীন মনে করলে যে কোন আনুষঙ্গিক বা অনুবর্তী আদেশ দান করতে পারবে; এবং এইরূপ কোনও আদেশ অনুসারে কোন সভা আহুত, অনুষ্ঠিত এবং পরিচালিত হয়ে থাকলে, উক্ত সভা সকল উদ্দেশ্যে উক্ত কোম্পানি কর্তৃক আহুত, অনুষ্ঠিত ও পরিচালিত সভা বলে গণ্য হবে।’

আইনের ওই ধারাবলেই হাইকোর্ট কোম্পানিটি পরিচালনার জন্য কমিটি গঠন করেন এবং এ মামলার আদেশে গঠিত পরিচালনা পর্ষদের সদস্যদের দায়িত্ব বণ্টন করেন।

নতুন পরিচালনা পর্ষদকের যেসব নির্দেশনা মানতে হবে

‘হাইকোর্টের নির্দেশ অনুসারে বোর্ডের চেয়ারম্যান প্রথম সভায় আদালতের আদেশ সম্পর্কে কমিটিকে অবহিত করবেন। একইসঙ্গে তিনি ইভ্যালির অডিট রিপোর্টসহ মূল বিষয় এবং তাদের করণীয় বিষয়টি তুলে ধরবেন।’

‘বোর্ডের সদস্যরা কেপিএমজি এর রহমান হককে দিয়ে ইভ্যালির অডিট রিপোর্ট তৈরির করাবে। প্রতি অর্থবছরে ইভ্যালির আর্থিক লেনদেন, গ্রাহকদের পণ্য সরবরাহের সময় ও ব্যয়, বর্তমানে বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও ব্যাংকে থাকা ইভ্যালির টাকা, ইভ্যালির সদস্য, প্রধান আর্থিক কর্মকর্তা ও বিগত বছরগুলোতে প্রতিষ্ঠানটি অডিটকারী কর্মকর্তাদের নাম নতুন করে অডিট রিপোর্টে তুলে ধরতে বলা হয়েছে। পরবর্তীতে ওই রিপোর্টের ভিত্তিতে বর্তমান পরিচালকগণ গ্রাহকদের থেকে অর্থ আদায়ের বিষয়টি সাবেক পরিচালকগণ কীভাবে করেছে তা খুঁজে বের করবেন এবং নিজেদের পর্যবেক্ষণ দিবেন।’

‘ইভ্যালির বর্তমান পরিচালকবৃন্দ যদি দেখতে পান, ইভ্যালির আর্থিক কার্যক্ষমতা ঝুঁকিতে রয়েছে, তাহলে তারা ইভ্যালির নিয়ন্ত্রক, কর্তৃপক্ষ, অর্থ মন্ত্রণালয়, বাণিজ্য মন্ত্রণালয় এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাছ থেকে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা চাইবে। একইসঙ্গে বর্তমান পরিচালনা পর্ষদ অতীতে পণ্য বিতরণে ব্যর্থতার জন্য বিভিন্ন কারণ বিবেচনায় নিয়ে ক্রেতাদের আবেদন অনুযায়ী টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য বা আইন অনুযায়ী পণ্য সরবরাহের জন্য আবেদনগুলো বিবেচনা নেবেন।’

‘অডিট রিপোর্ট প্রস্তুত হওয়ার পর ইভ্যালির বর্তমান ব্যবস্থাপনা পরিচালক বোর্ড সদস্যদের নিয়ে সভা আহবান করবেন। সভায় অডিট রিপোর্ট ও অন্যান্য নথি যাচাই-বাছাই করবেন। যদি তিনি ইভ্যালি পরিচালনা অসম্ভব মনে করেন, তাহলে তিনি বোর্ড সদস্যদের কাছে কোম্পানিটির অবসায়নের বিষয়টি তুলে ধরবেন। এছাড়াও তিনি পরিচালনাপর্ষদের প্রথম সভায় সবার পরামর্শক্রমে প্রয়োজন মনে করলে নতুন করে কোম্পানিতে কাউকে নিয়োগ বা পুনঃনিয়োগ করতে পারবেন। একইসঙ্গে তিনি ইভ্যালির সকল সম্পদের দেখভাল করবেন।’

আদালত তার অন্য আদেশে ইভ্যালির বর্তমান পরিচালনাপর্ষদের কাছে কোম্পানির নগদ টাকা, শেয়ার, ঋণপত্র, এফডিআর, চাবিসহ সব নথিপত্র বুঝিয়ে দিতে নির্দেশ দিয়েছেন।

ইভ্যালির নিয়ন্ত্রণকারী সংস্থা এবং মন্ত্রণালয়ের প্রতি আদালতের নির্দেশনা
কোম্পানিটির নিয়ন্ত্রণকারী সংস্থা এবং মন্ত্রণালয়কে বর্তমান পরিচালনা পর্ষদকে সহযোগিতা করতে বলা হয়েছে।

দুদক চেয়ারম্যানের প্রতি নির্দেশনা
দুদক চেয়ারম্যানকে ইভ্যালির লেনদেন বা ব্যবসায় অপরাধমূলক কার্যক্রম থেকে থাকলে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। একইসঙ্গে কোর্টের আদেশে গঠিত বোর্ডকে সহায়তা করতে বলা হয়েছে।

গ্রাহকদের জন্য আদালতের যে আদেশ
ইভ্যালির গ্রাহকদের উদ্দেশে আদালত বলেছেন, তারা চাইলে আদালতে আসতে পারে বা তাদের দাবিগুলো ইভ্যালির অফিসের মাধ্যমে সুরাহা করতে পারে। তবে আগামী ৬ মাসের মধ্যে তারা বোর্ড বা ইভ্যালি কর্তৃপক্ষের কাছে টাকা ফেরতের জন্য চাপ দিতে পারবেন না।

/ইউএস/
টাইমলাইন: ইভ্যালি
২২ অক্টোবর ২০২১, ১৪:০০
ইভ্যালির পরিচালনা পর্ষদ ও গ্রাহকদের যা মেনে চলতে হবে
১৮ অক্টোবর ২০২১, ১৯:১২
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৪৯
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:২০
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩:৪২

সম্পর্কিত

নারীদের নগদ টাকার ফাঁদে ফেলতো পাচারকারীরা

নারীদের নগদ টাকার ফাঁদে ফেলতো পাচারকারীরা

কক্সবাজারের জেলা প্রশাসককে তলব

কক্সবাজারের জেলা প্রশাসককে তলব

পাকস্থলীতে ইয়াবা, বিমানবন্দরে যাত্রী আটক

পাকস্থলীতে ইয়াবা, বিমানবন্দরে যাত্রী আটক

অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে হাসপাতালে দুজন

অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে হাসপাতালে দুজন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

নারীদের নগদ টাকার ফাঁদে ফেলতো পাচারকারীরা

নারীদের নগদ টাকার ফাঁদে ফেলতো পাচারকারীরা

কক্সবাজারের জেলা প্রশাসককে তলব

কক্সবাজারের জেলা প্রশাসককে তলব

পাকস্থলীতে ইয়াবা, বিমানবন্দরে যাত্রী আটক

পাকস্থলীতে ইয়াবা, বিমানবন্দরে যাত্রী আটক

অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে হাসপাতালে দুজন

অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে হাসপাতালে দুজন

আমার ছেলের অপরাধ সে ছাত্রলীগ করতো: অমিত সাহার মা

আবরার হত্যা মামলাআমার ছেলের অপরাধ সে ছাত্রলীগ করতো: অমিত সাহার মা

রায় দ্রুত কার্যকর চায় বুয়েট

রায় দ্রুত কার্যকর চায় বুয়েট

শিশু নিলয় হত্যা: চার আসামির মৃত্যুদণ্ড কমে যাবজ্জীবন

শিশু নিলয় হত্যা: চার আসামির মৃত্যুদণ্ড কমে যাবজ্জীবন

পুলিশের বিরুদ্ধে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ: বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ

পুলিশের বিরুদ্ধে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ: বিচার বিভাগীয় তদন্তের নির্দেশ

এমন হত্যাকাণ্ড যেন আর না ঘটে: বিচারক

এমন হত্যাকাণ্ড যেন আর না ঘটে: বিচারক

‘বাবা মনোবল শক্ত রাখো, তোমাদের কিছুই হবে না’ (ভিডিও)

‘বাবা মনোবল শক্ত রাখো, তোমাদের কিছুই হবে না’ (ভিডিও)

সর্বশেষ

ভারতের ওয়ানডে অধিনায়কও রোহিত

ভারতের ওয়ানডে অধিনায়কও রোহিত

‘গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড’ পেলো আকিজ ফুড

‘গ্রিন ফ্যাক্টরি অ্যাওয়ার্ড’ পেলো আকিজ ফুড

‘ট্রুথ সোশ্যাল’ দিয়ে ট্রাম্পের বিলিয়ন ডলার সংগ্রহের উদ্যোগ

‘ট্রুথ সোশ্যাল’ দিয়ে ট্রাম্পের বিলিয়ন ডলার সংগ্রহের উদ্যোগ

নারীদের নগদ টাকার ফাঁদে ফেলতো পাচারকারীরা

নারীদের নগদ টাকার ফাঁদে ফেলতো পাচারকারীরা

ইন্টারনেট গভর্ন্যান্স ফোরামের রিমোট হাব ঢাকায়

ইন্টারনেট গভর্ন্যান্স ফোরামের রিমোট হাব ঢাকায়

© 2021 Bangla Tribune