X
মঙ্গলবার, ১৬ এপ্রিল ২০২৪
৩ বৈশাখ ১৪৩১
রূপগঞ্জ ট্রাজেডি

বাঁচার জন্য বোতলে নাম লিখে নিচে ফেলেছিল কম্পা রানী

আমানুর রহমান রনি
০৭ আগস্ট ২০২১, ১২:২৯আপডেট : ০৭ আগস্ট ২০২১, ১৭:৪৮

বাঁচার জন্য চার তলা থেকে জুতা ও বোতলে নিজের নাম লিখে নিচে ফেলেছিল কম্পা রানী বর্মন (১৪)। তবে কেউ তাকে বাঁচাতে যায়নি। কারখানার গেট ছিল তালামারা। অবশেষে আগুনে পুড়ে মারা যায় এই কিশোরী।

শনিবার (৭ আগস্ট) বেলা ১১টার কম্পা রানীর লাশ নিতে এসে তার মা সুমা রানী বর্মন ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গের সামনে বাংলা ট্রিবিউনকে এ তথ্য জানান।

সুমা রানী বলেন, ‘আমার মেয়ের বয়স ১৪ বছর সাত মাস। পিসি (ফুফু) পতি রানী বর্মনের সঙ্গে ঢাকায় হাসেম ফুডস লিমিটেডের জুস কারখানায় কাজ করতে আসে। কাজ করতে আসার ২১ দিনের মাথায় মেয়ে পুড়ে মারা গেলো। আমি এই হত্যার বিচার চাই। যদি কারখানার গেট বন্ধ না থাকতো, তাহলে কেউ মারা যেতো না। সবাই বাঁচতে পারতো।’

আগুন লাগার পর নিজের ওড়না ও জুতায় নাম লিখে নিচে ফেলেছিল, তারা যেকজন আটকা পড়েছিল সবাই অনেক্ষণ বেঁচে ছিল, কিন্তু কেউ তাদের উদ্ধার করতে যায়নি বলেও তিনি অভিযোগ করেন।

কম্পার ফুফু পতি রানী বর্মন বলেন, ‘আমি ভাইজিকে এখানে নিয়ে আসি। সে আমার সঙ্গেই ছিল। যেদিন আগুন লাগে জুস কারখানায় আমি দৌড়ে সেখানে যাই, ওই দিন রাতে ডিউটি থাকায় আমি দিনে বাসায় ছিলাম। গিয়ে দেখি দোতালায় আগুন। শেলী নামে এক মেয়েকে আমি ফোন দেই। তারা তখন সবাই জীবিত, চার তলায় আগুন যায়নি। আমার ভাতিজি তার জুতা ও ওড়নায় নাম লিখে চার তলা থেকে নিচে ফেলে, এরপর আমার স্বামী ও আরও কয়েকজন কারখানার ওপরে ওঠার চেষ্টা করে, কিন্তু কারখানার তৃতীয় তলায় আগুন থাকায় তারা আর উপরে উঠতে পারেনি।’

কথা বলতে বলতে সুমা রানী ও পতি রানী কান্নায় ভেঙে পড়েন। পতি রানী বলেন, ‘শিকল দিয়ে গেট আটকে না রাখলে আমার ভাতিজি মারা যেতো না।’

কম্পা রানীর মা ও ফুফু সিলেট মৌলভীবাজার এলাকার পর্বা বর্মনের মেয়ে কম্পা বর্মন। তিন বোন ও দুই ভায়ের মধ্যে কম্পা ছিল দ্বিতীয়। দারিদ্র্যতার কারণে লেখাপড়া ছেড়ে হাসেম ফুডস কারখানায় কাজ করতে আসে। কিন্তু ভাগ্যের নির্মমতায় সেখানে আসার ২১ দিনের মাথায় কারখানায় আগুনের ঘটনা ঘটে। মারা যায় কম্পাসহ ৫২ নারী, শিশু ও কিশোর। যাদের ৪৮ মরাদেহ ডিএনএ’র মাধ্যমে শনাক্তের চেষ্টা করে সিআইডির ফরেনসিক বিভাগ। এদের মধ্যে ৪৫টি লাশ শনাক্ত করে তারা। তবে এখনও তিনটি লাশ শনাক্ত হয়নি। শনাক্ত হওয়া লাশের মধ্যে গত ৪ আগস্ট ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল থেকে ২৪ শ্রমিকের লাশ হস্তান্তর করে সিআইডি। বাকি ২১ লাশ শনিবার (৭ আগস্ট) হস্তান্তর করা হয়।

লাশ নিতে আসা স্বজনরা ঢামেক মর্গে কান্নায় ভেঙে পড়েন। নিহত সিমু নামে এক তরুণীর মা কান্না করে বলেন, ‘আমি আমার মেয়ের লাশ চাই না, মেয়েকে চাই।’

প্রসঙ্গত, নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সজীব গ্রুপের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান হাসেম ফুড অ্যান্ড বেভারেজের সেজান জুস কারখানায় গত ৮ জুলাই বিকাল সাড়ে ৫টায় আগুন লাগে। কারখানার ছয়তলা ভবনটিতে তখন ৪শ’র বেশি কর্মী কাজ করছিলেন। কারখানায় প্লাস্টিক, কাগজসহ মোড়ক করার প্রচুর সরঞ্জাম থাকায় আগুন মুহূর্তে ছড়িয়ে পড়ে সব ফ্লোরে। প্রচুর পরিমাণ দাহ্য পদার্থ থাকায় কয়েকটি ফ্লোরের আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে ফায়ার সার্ভিসের ১৮টি ইউনিটের ২০ ঘণ্টার বেশি সময় লাগে। সবমিলিয়ে এ ঘটনায় ৫২ জনের লাশ উদ্ধার হয়েছে।

 

 

/এআরআর/আইএ/
টাইমলাইন: নারায়ণগঞ্জে জুস কারখানায় আগুন
০৭ আগস্ট ২০২১, ১২:২৯
বাঁচার জন্য বোতলে নাম লিখে নিচে ফেলেছিল কম্পা রানী
সম্পর্কিত
সর্বশেষ খবর
আদালতে হাজির হয়ে ট্রাম্প বললেন, ‘এটি কেলেঙ্কারির বিচার’
আদালতে হাজির হয়ে ট্রাম্প বললেন, ‘এটি কেলেঙ্কারির বিচার’
পর্যটকদের মারধরের অভিযোগ এএসপির বিরুদ্ধে
পর্যটকদের মারধরের অভিযোগ এএসপির বিরুদ্ধে
২৭ বছর পর বাড়ি ফিরলেন শাহীদা, পূরণ হয়নি যে আশা
২৭ বছর পর বাড়ি ফিরলেন শাহীদা, পূরণ হয়নি যে আশা
ছাগলে গাছ খাওয়ায় দুপক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ১০
ছাগলে গাছ খাওয়ায় দুপক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ১০
সর্বাধিক পঠিত
কিছু আরব দেশ কেন ইসরায়েলকে সাহায্য করছে?
কিছু আরব দেশ কেন ইসরায়েলকে সাহায্য করছে?
বান্দরবা‌নে বম পাড়া জনশূ‌ন্য, অন্যদিকে উৎসব
বান্দরবা‌নে বম পাড়া জনশূ‌ন্য, অন্যদিকে উৎসব
সরকারি চাকরির বড় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি, আবেদন শেষ ১৮ এপ্রিল
সরকারি চাকরির বড় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি, আবেদন শেষ ১৮ এপ্রিল
শেখ হাসিনাকে নরেন্দ্র মোদির ‘ঈদের চিঠি’ ও ভারতে রেকর্ড পর্যটক
শেখ হাসিনাকে নরেন্দ্র মোদির ‘ঈদের চিঠি’ ও ভারতে রেকর্ড পর্যটক
ঈদের সিনেমা: হলে কেমন চলছে, দর্শক কী বলছে
ঈদের সিনেমা: হলে কেমন চলছে, দর্শক কী বলছে